আমপানের পর ইয়াস, বিধ্বস্তদের পাশে ফের ঈশান পোড়েল

ডায়মন্ডহারবারের রামনামপুর অঞ্চলের একটি গ্রামে প্রায় ৮০টি পরিবারের হাতে খাবার, জামাকাপড় ও প্রয়য়োজনীয় জিনিসপত্র তুলে দিলেন ঈশান। একটি সংস্থা সৃষ্টি ফাউন্ডেশনের হয়ে ইয়াস বিধ্বস্ত মানুষের সাহায্যে সেখানে যান ঈশান।

আমপানের পর ইয়াস, বিধ্বস্তদের পাশে ফের ঈশান পোড়েল
ইয়াস বিধ্বস্তদের পাশে ঈশান পোড়েল

কলকাতাঃ ২ বছর আগে বিশ্বকাপজয়ী ভারতীয় (INDIAN CRICKETER) অনূর্ধ্ব ১৯ দলের অন্যতম সদস্য। বাংলার রঞ্জি(RANJI TROPHY) দলের নিয়মিত সদস্য। ক্রিকেট , অনুশীলনে ব্যস্ততা বছরভর। কিন্তু মানুষ বিপদেে পড়লে নিজেকে ঘরবন্দি রাখতে পারেন না বাংলার (BENGAL)পেসার ঈশান পোড়েল(ISHAN POREL)। সেই টানেই ফের এবার ইয়াস(YAAS) বিধ্বস্তদের পাশে ঈশান।

গত ২৬শে মে ইয়াসে বিধ্বস্ত বাংলা। দক্ষিণ ২৪ পরগণা, মেদিনীপুরের জেলাগুলি চরম ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। উপকূলবর্তী এলাকার বাসিন্দাদের এখন অনেকেই চালচুলোহীন। দুমুঠো খাবার জোগাড়ে প্রাণ ওষ্ঠাগত। প্রতি সেকেন্ডে চলছে জীবনের জন্য লড়াই। এবার সেই ইয়াস বিধ্বস্তদের মানুষের পাশে দাঁড়ালেন ঈশান। ডায়মন্ডহারবারের রামনামপুর অঞ্চলের একটি গ্রামে প্রায় ৮০টি পরিবারের হাতে খাবার, জামাকাপড় ও প্রয়য়োজনীয় জিনিসপত্র তুলে দিলেন ঈশান। একটি সংস্থা সৃষ্টি ফাউন্ডেশনের হয়ে ইয়াস বিধ্বস্ত মানুষের সাহায্যে সেখানে যান ঈশান। তাঁদের সঙ্গেই গ্রামের মানুষের পাশে দাঁড়ালেন ঈশান।

 

bengal cricket ishan porel helps yaas affected people

সংস্থার বাকি সদস্যদের সঙ্গে ঈশান

 

মানুষের পাশে দাঁড়ানোএই  প্রথম নয় ঈশানের। গতবছরই আমপান বিধ্বস্ত সুন্দরবনের মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন বাংলার এই পেসার। আর এবার ইয়াস বিধ্বস্তদের পাশে। ছোটবেলায়  নিজের পকেট মানি জমাতেন। নিজের ক্রিকেট ব্যাট-বল কেনা ছাড়া, বাকি অর্থ দিতেন আর্ত মানুষের সেবায়।ঈশান পোড়েল এমনই। তবে কোনওদিন প্রচার করতেই পছন্দ করেন না।তখন থেকেই সৃষ্টি ফাউন্ডেশনের সঙ্গে পরিচয়। এবার সেই সংস্থার হয়েই পৌঁছে গেলেন ইয়াস বিধ্বস্তদের পাশে। সঙ্গে ছিলেন সংস্থার প্রধান মৌমিতা চট্টোপাধ্যায়ও।

বাংলা ক্রিকেটের নতুন তারকার এই উদ্যোগ প্রশংসিত হচ্ছে বঙ্গ ক্রিকেটমহলে।

 

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla