যদি বলেন আমি শর্ট কিংবা বলেন আমি খুব মোটা, তাহলে বলব…: বিদ্যা বালন

‘ভুল ভুলাইয়া’, ‘নো ওয়ান কিল্ড জেসিকা’, ‘দ্য ডার্টি পিকচার’, ‘পা’, ‘কাহানি’, ‘ইশকিয়া’, ‘মিশন মঙ্গল’, ‘তুমহারি সুল্লু’ এবং ‘শকুন্তলা’ প্রভৃতি ছবিতে তাঁর অভিনয়ের মাধ্যমে হতবাক করেছেন

যদি বলেন আমি শর্ট কিংবা বলেন আমি খুব মোটা, তাহলে বলব...: বিদ্যা বালন
বিদ্যা বালন

বিদ্যা বালন একাধিকবার তাঁর অভিনয় দক্ষতায় মুগ্ধ করেছেন দর্শককে। তাঁর চরিত্রগুলোকে দারুণ সব পারফরম্যান্সের মাধ্যমে বাঁচিয়ে তুলেছেন। অনেকে মনে করেন সমাজের স্টিরিওটিপিকাল ভাবনাচিন্তা ভেঙে দিয়েছেন অভিনেত্রী। তবে বিদ্যা বলেন যে সচেতনভাবে তিনি কিছুই করেননি।

২০০৫ সালে ‘পরিণীতা’-র সঙ্গে বলিউডে পা রাখেন বিদ্যা। তারপর ‘ভুল ভুলাইয়া’, ‘নো ওয়ান কিল্ড জেসিকা’, ‘দ্য ডার্টি পিকচার’, ‘পা’, ‘কাহানি’, ‘ইশকিয়া’, ‘মিশন মঙ্গল’, ‘তুমহারি সুল্লু’ এবং ‘শকুন্তলা’ প্রভৃতি ছবিতে তাঁর অভিনয়ের মাধ্যমে হতবাক করেছেন। ‘নিউটন’খ্যাত নির্মাতা অমিত মাসুরকরের ‘শেরনী’-তে একজন বনদফতরের কর্মী হিসাবে দেখা যাবে তাঁকে।

 

“আমি স্টিরিওটিপিস ভাঙার জন্য প্রস্তুতি নিইনি তবে আমি মনে করি আমার জীবনের অভিজ্ঞতাগুলির মধ্য দিয়ে, বিশেষত একজন অভিনেতা হিসাবে আমি বুঝতে পেরেছি যে আমি অভিনেতা হওয়ার পথে আর কিছুই আসতে দিইনি,” বলেন জাতীয় পুরষ্কারপ্রাপ্ত এবং পদ্মশ্রীপ্রাপ্ত অভিনেত্রী।

 

 

বছর বিয়াল্লিশের অভিনেত্রী ব্যাখ্যা করে বলে, “সুতরাং যদি আপনি আমাকে বলেন, একজন অভিনেতা হিসেবে আমি শর্ট, অভিনেতা হিসেবে খুব মোটা, আমি একটু বেশিই বোল্ড, আমি খুব বুদ্ধিমান বা যাই হোক না কেন, যা কিছু… আমি নিজেকে পরিবর্তন করতে পারব না তবে আমি আমার পথ ঠিক খুঁজে নেব।”

আরও পড়ুন আলিয়ার নাচে শুটিং শেষ হতে চলেছে বনসালী পরিচালিত ‘গাঙ্গুবাই কাঠিয়াওয়াড়ি’র