‘বিনামূল্যে রেশন দিয়ে ভোটে জেতা যায় না’, নির্বাচনে বিজেপির ফল নিয়ে আশাবাদী বিপ্লব দেব

ত্রিপুরা নির্বাচন(Tripura Election)-র কথা মনে করিয়ে দিয়ে বিপ্লব দেব (Biplab Deb) বলেন, ত্রিপুরাতেও বহু মানুষ বাম সরকারকেই সমর্থন করত। কিন্তু উন্নয়নের আশাতেই তাঁরা সিপিএম (CPM) ছেড়ে বিজেপি(BJP)-তে যোগ দিয়েছিলেন। নির্বাচনমুখী রাজ্যগুলিতেও একই ফল দেখা যাবে।

'বিনামূল্যে রেশন দিয়ে ভোটে জেতা যায় না', নির্বাচনে বিজেপির ফল নিয়ে আশাবাদী বিপ্লব দেব
ফাইল চিত্র।

আগরতলা: মানচিত্রে কয়েক হাজার কিলোমিটারের দূরত্ব থাকলেও ত্রিপুরা (Tripura) ও কেরল(Kerala)-র মধ্যে সামজ্ঞস্য খুঁজে পাচ্ছেন বিজেপি (BJP)নেতারা। সম্প্রতি কেরলের বিজেপি নেতা ই শ্রীধরন (E Sreedharan) বলেছিলেন, “ত্রিপুরার মতোই কেরলেও বিজেপি শূন্য থেকে উঠে আসবে এবং সরকার গঠন করবে।” এবার একই সুর শোনা গেল ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব(Biplab Deb)-র মুখেও। কেরল নির্বাচনের মুখে শাসক বাম সরকারকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, “সাধারণ মানুষকে বিনামূল্যে রেশন দিয়ে নির্বাচনে জেতা সম্ভব নয়।”

আসন্ন কেরল বিধানসভা নির্বাচনে (Kerala Assembly Election 2021) আর বিরোধী দল নয়, এবার শাসক দলের গদিতেই বসতে চায় বিজেপি। ২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে একটি মাত্র আসন পেয়েছিল কেন্দ্রের শাসক দল. এবার সেই আসন সংখ্যাই ১০০-এ পৌঁছনোর লক্ষ্যে প্রচার শুরু করেছে বিজেপি। ভিনরাজ্যে দলের জয়লাভের সম্ভাবনা কতটা, এই প্রশ্নের জবাবে বিপ্লব দেব বলেন, “পেনশন বৃদ্ধি করে ও বিনামূল্যে রেশন বিতরণ করে এলডিএফ সরকার জিততে পারবে না। আমার রাজ্যের মতোই কেরলেও বহু খ্রিস্টান মানুষ বিজেপিকেই সমর্থন করছেন।”

আরও পড়ুন: Corona Cases and Lockdown News LIVE: ফিরছে কন্ট্যাক্ট ট্রেসিং, পঞ্জাবে ৩১ মার্চ অবধি বন্ধ স্কুল-কলেজ

ত্রিপুরা নির্বাচনের কথা মনে করিয়ে দিয়ে তিনি বলেন, “ত্রিপুরাতেও আগে বহু মানুষ বাম সরকারকেই সমর্থন করত। কিন্তু উন্নয়নের আশাতেই তাঁরা সিপিএম ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন। সেখানে কেরলে বিজেপির কাছে ইতিমধ্যেই ১৭ শতাংশ জনসমর্থন রয়েছে। ২০১৮ সালের আগে ত্রিপুরাতেও এত সমর্থন ছিল না। কেরল নির্বাচনে অনুপ্রাণিত হওয়ার জন্য শ্রেষ্ঠ উদাহরণ হল ত্রিপুরাই।”

পিনারাই বিজয়ন(Pinarayi Vijayan)-র সরকারকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, “বিনামূল্যে রেশন দিয়ে বা পেনশন বাড়িয়ে নির্বাচনে জেতা যায় না। কেরলের মানুষ আসল উন্নয়ন চায়। এই উন্নয়ন কেবল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীই আনতে পারেন।”

আরও পড়ুন: রাজ্যে সন্ত্রাসের পরিবেশ, অবাধ নির্বাচন সম্ভব নয়, নালিশ নিয়ে কমিশনে বিজেপি

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla