কয়লা কাণ্ড: রুজিরার বয়ানে অসন্তুষ্ট সিবিআই, দ্বিতীর পর্বে জিজ্ঞাসাবাদের সম্ভাবনা

কয়লা পাচার কাণ্ডে (CBI on coal smuggling case ) অভিষেক-পত্নি রুজিরা নারুলাকে (Rujira Narula) ঠিক কী কী প্রশ্ন করেছিল সিবিআই? রইল তালিকা

  • TV9 Bangla
  • Published On - 10:18 AM, 24 Feb 2021
কয়লা কাণ্ড: রুজিরার বয়ানে অসন্তুষ্ট সিবিআই, দ্বিতীর পর্বে জিজ্ঞাসাবাদের সম্ভাবনা
গ্রাফিক্স- অভীক দেবনাথ

কলকাতা: কয়লা পাচার কাণ্ডে (CBI on coal smuggling case) অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) স্ত্রী রুজিরা নারুলাকে (Rujira Narula) আবারও জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারে সিবিআই। সূত্রের খবর, প্রথম দিন জিজ্ঞাসাবাদ পর্বে রুজিরার উত্তরে সন্তুষ্ট নয় কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার কর্তারা। সিবিআইয়ের করা বেশিরভাগ প্রশ্নের উত্তরই ‘জানি না’ বলে এড়িয়ে গিয়েছেন রুজিরা। সিঙ্গাপুরের অ্যাকাউন্ট তাঁর নামে নয় বলে সিবিআই-এর কাছে দাবি করেছেন রুজিরা।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার প্রায় দেড় ঘণ্টা রুজিরাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন সিবিআই কর্তারা। বিদেশি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট, আর্থিক লেনদেন নিয়ে প্রশ্ন করা হয় তাঁকে। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে দাবি করা হয়েছে. রুজিরা সিবিআইয়ের সব প্রশ্নেরই উত্তর দিয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদ পর্ব মসৃণভাবেই মিটেছে বলে দাবি তাঁদের।

মঙ্গলবার নিজের বাড়িতে আইনজীবীদের সঙ্গে নিয়ে সিবিআই-এর মুখোমুখি হন রুজিরা। প্রায় ২৫-৩০ টি প্রশ্ন সাজিয়ে নিয়ে যান গোয়েন্দারা। যার মধ্যে ছিল পাসপোর্ট ও নাগরিকত্ব সংক্রান্ত বিষয়ও।

সূত্রের খবর, রুজিরাকে যে সব প্রশ্ন করা হয়েছে,

আপনার প্যান কার্ডের নম্বর কী?
কোন কোন ব্যাঙ্কে আপনার অ্যাকাউন্ট আছে?
জয়েন্ট অ্যাকাউন্ট থাকলে, তা কার সঙ্গে রয়েছে?
বিদেশের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট থাকলে, তার সংখ্যা কত?
ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে কত টাকা রয়েছে, তার স্টেটমেন্ট দেখাতে পারবেন?
বার্ষিক আয় কত? আয়ের উৎস চাকরি না ব্যবসা?
শেষ পাঁচ বছরে কত টাকা আয়কর দিয়েছেন? আয়কর রিটার্ন দেখাতে পারবেন?
বিদেশের ব্যাঙ্কে লেনদেনের টাকা কোথা থেকে এসেছে?

জেরার সময়ে সারাক্ষণ নিজাম প্যালেসের সঙ্গে যোগাযোগ রাখেন সিবিআই আধিকারিকরা। সিবিআই সূত্রে খবর, রুজিরা এদিন বেশ কয়েকটি প্রশ্নের উত্তর দেননি। এরপরই জেরা করতে যে আধিকারিকরা গিয়েছিলেন, তাঁদের ফিরে আসার নির্দেশ দেয় নিজাম প্যালেস। রুজিরার বাড়ি থেকে বেরিয়ে দুপুর ২টো নাগাদ নিজাম প্যালেসের কর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসেন সিবিআই টিমের সদস্যরা। রুজিরার বয়ান নিয়ে চুল চেরা বিশ্লেষণ চলে।

আরও  পড়ুন: সকলের সামনে দিয়েই ঢোকান রাকেশকে, কিন্তু দেখতে পারলেন না কেউই! বিশেষ কায়দা লালবাজারের গোয়েন্দাদের

কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সূত্রের খবর, তাইল্যান্ডের ব্যাঙ্কের সংশ্লিষ্ট অ্যাকাউন্ট তাঁর নামে নয় বলে দাবি করেন রুজিরা। কাগজ দেখালেও তা চিনতে অস্বীকার করেন। এবার তাইল্যান্ডের সংশ্লিষ্ট ব্যাঙ্কে নোটিস দিতে চলেছে সিবিআই। এদিন রুজিরার বয়ান রেকর্ড করার সময়ে ভিডিয়োগ্রাফি করা হয়। রুজিরার বোন মেনকা যা বয়ান দিয়েছেন, তার সঙ্গে মিলিয়ে দেখা হচ্ছে। সিবিআই সূত্রে খবর, দরকার হলে আবারও জেরা করা হতে পারে রুজিরাকে।