Navratri 2022: নবরাত্রির নয় দিন কেন নিরামিষ খাবার খাবেন? জানুন কী বলছে আয়ুর্বেদ শাস্ত্র

Hinduism: নবরাত্রির সময়, হিন্দুদের প্রক্রিয়াজাত খাবার খাওয়া উচিত নয়। এমন কোনও খাবারই নবরাত্রির সময় খাওয়া যাবে না যা দীর্ঘদিন ধরে সংরক্ষণ করা ছিল।

Navratri 2022: নবরাত্রির নয় দিন কেন নিরামিষ খাবার খাবেন? জানুন কী বলছে আয়ুর্বেদ শাস্ত্র
TV9 Bangla Digital

| Edited By: megha

Sep 21, 2022 | 6:00 AM

নবরাত্রি শুরু হতে আর বেশি দিন বাকি নেই। নবরাত্রিতে দেবী দুর্গার আরাধনা করা হয়। নবরাত্রি চলাকালীন বেশ কিছু নিয়ম মেনে চলতে হয়। নবরাত্রি চলাকালীন নয় দিন নিরামিষ খাবার খেতে হয়। সাত্ত্বিক খাবার খাওয়ার নিয়ম রয়েছে নবরাত্রিতে। বিশেষত, পেঁয়াজ ও রসুন একেবারেই নবরাত্রিতে খাওয়া উচিত নয়। পাশাপাশি মাছ, মাংস, ডিমও খাওয়া চলবে না। শুধুমাত্র স্বাস্থ্যকর, জৈব, উদ্ভিদ-ভিত্তিক এবং দুগ্ধজাত পণ্য ব্যবহার করে তৈরি করা খাবারই নবরাত্রিতে খাওয়া হয়। যে কোনও প্রাণীজ খাবার নবরাত্রিতে কঠোরভাবে নিষিদ্ধ।

আয়ুর্বেদ বিশেষজ্ঞরা বিশ্বাস করেন যে সাত্ত্বিক খাদ্য, নিরামিষ খাবার হজম করা সহজ। এই ধরনের খাবার দ্রুত শরীরে হজম হয়ে যায়। পাশাপাশি এটি যে কোনও ধরনের জটিল রোগকে সহজেই এড়ানো যায়। প্রাচীনকাল থেকে এই ধরনের খাবারকে প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে। এতে হজম ক্ষমতা উন্নত হয়, বিপাক ক্রিয়া বৃদ্ধি পায়, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার কার্যকারিতা উন্নত হয়, ত্বক ভাল থাকে, চুলের স্বাস্থ্য উন্নত হয় এবং মানসিক স্বাস্থ্যও ভাল থাকে।

নবরাত্রির সময়, হিন্দুদের প্রক্রিয়াজাত খাবার খাওয়া উচিত নয়। এমন কোনও খাবারই নবরাত্রির সময় খাওয়া যাবে না যা দীর্ঘদিন ধরে সংরক্ষণ করা ছিল। এই কারণে প্যাকেটজাত খাবারও নবরাত্রির সময় বর্জন করা হয়। এর বদলে তাজা খাবার খাওয়ার উপদেশ দেয় হিন্দু শাস্ত্র। তাজা ফল, সবজি ইত্যাদি খাবার এই সময় খাওয়া উচিত।

আয়ুর্বেদ খাদ্য উপাদানগুলিকে তিনটি ভিন্ন গুণে শ্রেণীবদ্ধ করে- যথা সত্ত্ব বা সাত্ত্বিক, রাজস বা রাজসিক এবং তমস বা তামসিক। সাত্ত্বিক মানে এমন কিছু যা বিশুদ্ধ ও প্রাকৃতিক। রাজসিকের অর্থ হল পরিষ্কার ও প্রয়োজনীয়। এবং তামসিককে বোঝানো হয় যা অপরিপক্ক, দুর্বল, বিরক্তিকর এবং ধ্বংসাত্মক। নবরাত্রির সময় পেঁয়াজ এবং রসুনের মতো খাদ্য উপাদানগুলি একেবারেই বর্জন করা উচিত। এগুলো প্রকৃতিতে তামসিক হিসেবে বিচেবক করা হয়।

এই খবরটিও পড়ুন

হিন্দু ধর্মাবলম্বীরা বিশ্বাস করেন যে, পেঁয়াজ এবং রসুন আকাঙ্ক্ষা এবং অগ্রাধিকারের মধ্যে পার্থক্য বিবেচনা করাকে কঠিন করে তোলে, যেহেতু রসুন রাজযোগিনী নামে পরিচিত। রাজযোগিনী হল এমন একটি পদার্থ যেখানে বিশ্বাস করা হয় যে এটি শরীরে তাপ উৎপন্ন করে। নবরাত্রি উদযাপনের নয় দিন হল এমন একটি সময় যখন ভক্তদের পার্থিব আনন্দকে বর্জন করতে হবে এবং একটি বিশুদ্ধ ও সরল জীবনযাপন করতে হবে। এই সময় রাজসিক এবং তামসিক খাবার আপনার মনোযোগকে বিক্ষিপ্ত করবে বলে মনে করা হয় তাই এই সময় পেঁয়াজ এবং রসুন খাওয়া উচিত নয়।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla