দুই যুবকের মর্মান্তিক পরিণতি, ফেসবুকে লাইভ দেখেই শোকের ছায়া গোটা গ্রামে

তাঁদের আর্তনাদ শুনে ছুটে আসেন স্থানীয় বাসিন্দারা। সঙ্গে সঙ্গে খবর যায় পুলিশের কাছে।

দুই যুবকের মর্মান্তিক পরিণতি, ফেসবুকে লাইভ দেখেই শোকের ছায়া গোটা গ্রামে
নিজস্ব চিত্র

জলপাইগুড়ি: মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারালেন জলপাইগুড়ি (Jalpaiguri) জেলার রাজগঞ্জ ব্লকের পানিকৌড়ি অঞ্চলের দুই যুবক। তাঁরা এক সঙ্গেই রাজমিস্ত্রির কাজ করতেন। গতকালও একসঙ্গে মোটর বাইকে গজলডোবা এলাকায় কাজ করতে গিয়েছিলেন ওই দু’জন। কিন্তু রাত্রিবেলা বাড়ি ফেরার পথেই ঘটে গেল অঘটন। দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন দুই যুবকই।

পানিকৌড়ি অঞ্চলের বাসিন্দা ২৮ বছরের অজিত রায় ও ২০ বছরের বয়সী উধ্যপ রায় এই দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন। রাতে গজলডোবা থেকে বাড়ি ফেরার সময় রাতে ভান্ডিবাড়ি স্কুলের সামনে নিয়ন্ত্রণ হারা ওই দুই যুবকের বাইক। এরপর একটি কাঠাল গাছে ধাক্কা খায় ওই দুই যুবকের বাইক। সরাসরি কাঠাল গাছে ধাক্কা খাওয়ার ফলে মাথা পেটে মুখ থেঁতলে যায় দুই যুবকের।

তাঁদের আর্তনাদ শুনে ছুটে আসেন স্থানীয় বাসিন্দারা। সঙ্গে সঙ্গে খবর যায় পুলিশের কাছে। সেই সময় একজন এলাকাবাসী সম্পূর্ণ ঘটনা ফেসবুক লাইভ করেন। সেই লাইভ দেখতে  পানিকৌড়ি অঞ্চলের পঞ্চায়েত সদস্যার স্বামী হানিসুর ইসলাম। এরপর হানিসুর গ্রামবাসীদের সঙ্গে কথা বলে পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করে ঘটনাস্থলে পৌঁছন।

গুরুতর জখম ওই দুই যুবককে মগরাডাঙি হাসপাতালে নিয়ে গেলে তাঁদের মৃত বলে ঘোষণা করেন চিকিৎসকরা। ওই দুই যুবকের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জলপাইগুড়ি পাঠিয়েছে রাজগঞ্জ থানার পুলিশ। তবে এলাকাবাসীদের কাছ থেকে জানা গিয়েছে, ওই দুই যুবকের মাথায় হেলমেট ছিল না। তাই কেউ কেউ বলছেন হেলমেট থাকলে হয়ত প্রাণে বেঁচে যেতেন তাঁরা। সরকারের তরফে ক্রমাগত দুর্ঘটনা এড়ানোর জন্য একাধিক পদক্ষেপ করা হয়েছে। তারপরও এহেন ঘটনায় দুই যুবকের মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে পানিকৌড়ি অঞ্চলে।

আরও পড়ুন: গোসাবায় বোমা বিস্ফোরণ, ভস্মীভূত বাড়ি, জখম ৬ বিজেপি কর্মী

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla