CCTV Footage: মৃত্যুর পরের দিন হাসপাতালে হানা দিল ভূতুড়ে রোগী

CCTV Footage: মৃত্যুর পরের দিন হাসপাতালে চিকিৎসা করাতে এলেন ভূতুড়ে রোগী। সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গিয়েছে, নিরাপত্তারক্ষী এক অদৃশ্য রোগীর সঙ্গে কথা বলেন।

CCTV Footage: মৃত্যুর পরের দিন হাসপাতালে হানা দিল ভূতুড়ে রোগী
অদৃশ্য রোগীর সঙ্গে কথা বলতে দেখা গিয়েছে নিরাপত্তারক্ষীকে
TV9 Bangla Digital

| Edited By: অঙ্কিতা পাল

Nov 22, 2022 | 10:40 AM

বুয়েনস আইরেস: হাসপাতালের সামনের দরজা দিয়ে প্রবেশ করেছিলেন বৃদ্ধা রোগী। সিসিটিভি ফুটেজের দেখা গিয়েছে, হাসাতালের নিরাপত্তা রক্ষী তাকে স্বাগত জানাচ্ছেন। এমনকি, তাঁকে তাঁর অ্যাপয়েন্টমেন্টের জন্য ডাক্তারের অফিসেও নিয়ে যাচ্ছে। অথচ, ওই রোগীর না কি তার আগের দিনই মৃত্যু হয়েছিল! আর্জেন্টিনার বুয়েনস আইরেসের, ফিনোচিত্তো স্যানাটোরিয়াম হাসপাতালের এই সিসিটিভি ফুটেজ, গোটা নেট দুনিয়ায় শিহরণ জাগিয়েছে। তাহলে কি ওই বৃদ্ধা রোগীর জায়গায় তাঁর ভূত এসেছিল চিকিৎসা করাতে?

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী এই বিস্ময়কর ঘটনাটি ঘটেছে গত ১১ নভেম্বর ভোর সাড়ে তিনটে নাগাদ। নিরাপত্তারক্ষীর বয়ান অনুযায়ী ওই বয়স্ক মহিলা হাসপাতালে এসে এক ডাক্তারের সঙ্গে দেখা করতে চেয়েছিলেন। সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গিয়েছে, নিরাপত্তারক্ষী এক অদৃশ্য রোগীর সঙ্গে কথা বলেন। তাঁকে হুইলচেয়ারে করে যাওয়ার প্রস্তাবও দেন। কিন্তু ওই মহিলা পায়ে হেঁটেই ডাক্তারের অফিসে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। এরপর কয়েক ঘন্টা কেটে গেলেও, ওই রোগী ডাক্তারের অফিস থেকে বের হননি দেখে, নিরাপত্তারক্ষী ডাক্তারের অফিসে গিয়ে খোঁজ নেন। কিন্তু, ডাক্তাররা জানান যে, তাঁরা ওই সময় কোনও রোগী দেখেননি।

এরপর নিরাপত্তারক্ষীর কাছে ওই রোগীর বিশদ বিবরণ জানতে চাওয়া হয়। তিনি যে নাম বলেন, তাতে হতবাক হয়ে গিয়েছিলেন ডাক্তার-নার্স সকলে। কারণ, হাসপাতালের রেকর্ড অনুযায়ী ওই একই নামের এবং একই বিবরণের এক মহিলার মৃত্যু হয়েছে একদিন আগে। এরপরই, সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে এই ভূতুরে রোগীর কাহিনি ছড়িয়ে পড়েছে। প্রায় সকলেই মন্তব্য করেছেন, মৃত রোগীই ভূত হয়ে হাসপাতালে এসেছিলেন।

তবে, আর্জেন্টিনার ওই বেসরকারি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ “ভূত রোগীর” তত্ত্ব মানতে নারাজ। হাসপাতালের এক মুখপাত্র জানিয়েছে, সিসিটিভি ফুটেজে যে দরজাটি খুলে ওই ভূতুরে রোগীকে প্রবেশ করতে দেখা যাচ্ছে, সেই দরজাটি কর্তব্যরত ডাক্তারকে দেখাতে যাওয়ার প্রবেশদ্বার। এটি একটি স্বয়ংক্রিয় দরজা। কিন্তু, সম্প্রতি স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থাটি খারাপ হয়ে যাওয়ায়, বৃহস্পতিবার রাত থেকে শুক্রবার ভোরে ১০ ঘন্টার মধ্যে দরজাটি নিজে থেকেই ২৮ বার খুলে গিয়েছিল। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অনুমান, ওই নিরাপত্তারক্ষী রসিকতা করার জন্যই ওই ভূতের কাহিনি তৈরি করেছেন। তার জন্যই ওই ‘অদৃশ্য রোগী’র উপস্থিতির দাবি করছেন। ওই মুখপাত্র আরও জানিয়েছেন, ওই সময়ে কোনও ব্যক্তি যে হাসপাতালে প্রবেশ করেছিল তার কোনও রেকর্ড নেই। নিরাপত্তারক্ষীকে কিছু লেখার ভান করতে দেখা গেলেও, রেজিস্ট্রিতে কারোর নাম লেখা ছিল না। তবে, তারপরও এই ঘটনার বিশদ তদন্ত করা হচ্ছে।

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla