মোর্চাকে এড়িয়ে ১৫ দিন ব্যাপী আন্দোলনের ডাক বামেদের, সুর চড়বে রাজ্যপালের বিরুদ্ধেও

পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির ইস্যুকে হাতিয়ার করে কেন্দ্র-রাজ্যের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এমনকী, রাজ্যপালের বিরুদ্ধেও সুর সপ্তমে তোলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

মোর্চাকে এড়িয়ে ১৫ দিন ব্যাপী আন্দোলনের ডাক বামেদের, সুর চড়বে রাজ্যপালের বিরুদ্ধেও
ফাইল ছবি

কলকাতা: বিধানসভা নির্বাচন মেটার মাসদেড়েকের মধ্যেই হতাশা ঝেড়ে ফেলে ফের আন্দোলনের পথে নামছে বামফ্রন্ট। তবে তাৎপর্যপূর্ণ বিষয় হল, সংযুক্ত মোর্চার ব্যানারে নয়। আন্দোলনে নামা হচ্ছে বামফন্ট্রের অন্তর্ভুক্ত দলগুলির পক্ষ থেকে। পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধির ইস্যুকে হাতিয়ার করে কেন্দ্র-রাজ্যের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এমনকী, রাজ্যপালের বিরুদ্ধেও সুর সপ্তমে তোলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

মঙ্গলবার আলিমুদ্দিনে প্রায় দেড় ঘণ্টার বৈঠক চলে বামফ্রন্টের। সেই বৈঠকেই স্থির হয়, পেট্রোপণ্যের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে যেভাবে সাধারণ মানুষ নাজেহাল হচ্ছেন, তার বিরুদ্ধে বড় আন্দোলনে নামা হবে। আগামী ২৪ জুন থেকে এই আন্দোলন চলবে টানা ১৫ দিন। অবশ্যই কোভিড বিধি মেনে এই আন্দোলন করা হবে। তবে সংযুক্ত মোর্চাকে (কংগ্রেস-আইএসএফ) এই আন্দোলনে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি। বামেরাই এই আন্দোলনে নেতৃত্ব দেবে।

আরও একটি বড় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে আজকের বৈঠকে। বৃহত্তর বামফ্রন্টের অন্তর্ভুক্ত লিবারেশনের মতো যে দলগুলি আলাদাভাবে নির্বাচন লড়েছিল, তাদেরকেও এই আন্দোলনে শামিল হওয়ার আহ্বান জানানো হবে।

কিন্তু সংযুক্ত মোর্চাকে এড়িয়ে কেন এই আন্দোলন? এই প্রসঙ্গে আলিমুদ্দিনের ব্যাখ্যা, যেহেতু লড়াই এবং সংগ্রামের নিজস্ব একটি ইতিহাস বামফ্রন্টের রয়েছে, সেই কারণে মোর্চাকে বাদ রেখে এককভাবে এই কর্মসূচি পালনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। যদিও রাজনৈতিক মহলের একাংশ মনে করছে, নির্বাচনে যেভাবে এই মোর্চা মুখ থুবড়ে পড়েছে, এবং ফরোয়ার্ড ব্লকের মতো শরিকরাই বিষয়টি নিয়ে দলের অন্দরে সুর চড়াচ্ছে, সেই কারণে কিছুটা সুচিন্তিতভাবে মোর্চার দলগুলির সঙ্গে তফাৎ বজায় রাখা হচ্ছে।

আরও পড়ুন: বুক ফুঁড়ে শিরদাঁড়া ভেঙে দিয়েছিল রড, মিরাকেল অস্ত্রোপচারে তরুণীকে বাঁচালেন SSKM-এর চিকিৎসকরা

মঙ্গলবারের বৈঠকেও মোর্চার সঙ্গে জোট প্রসঙ্গ তোলা হয় সিপিআই নেতৃত্বের তরফে। সেই সময়ে ফ্রন্ট চেয়ারম্যান বিমান বসু তাঁদের বলেন, কোনও দলেরই এখনও ভোট কেন্দ্রিক পর্যালোচনা শেষ হয়নি। আগে দলগত পর্যালোচনা শেষ হোক। তার পরে এই বিষয়ে আলোচনা হবে।

আরও পড়ুন: ‘মানাতে পারছে না বিজেপি,’ দিলীপ-শুভেন্দুতে অভিমানী সুনীলের ‘ঘরওয়াপসি’?

 

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla