Greying of Hair: অকালে পেকে গিয়ে চুলের সৌন্দর্যের বারোটা বাজাচ্ছে? মেনে চলুন ঘরোয়া ও আয়ুর্বেদিক ৫ উপায়

Hair care tips: রঞ্জন পিত্তের কোনও ভারসাম্যহীনতায় মেলানিনের উত্‍পাদন কমিয়ে দিতে পারে। তার ফলে চুলে পাক ধরে। এছাড়া জেনেটিক্স, পরিবেশগত কারণ, মানসিক চাপ, সঠিক না খাওয়ার কারণে অকালে চুল পেকে যায়।

Greying of Hair: অকালে পেকে গিয়ে চুলের সৌন্দর্যের বারোটা বাজাচ্ছে? মেনে চলুন ঘরোয়া ও আয়ুর্বেদিক ৫ উপায়
TV9 Bangla Digital

| Edited By: dipta das

Apr 17, 2022 | 8:29 AM

অকালে চুল পেকে (Premature Greying Hair) যাওয়ায় চুলের সৌন্দর্য কি নষ্ট হচ্ছে? অসময়ে রূপোলী চুলের রেখা দেখতে পেয়ে পাগল পাগল অবস্থা? পাকা চুলের (Grey Hair) সঙ্গে মোকাবিলা করতে কী করবেন, তা সম্পূর্ণ ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত। তবে আয়ুর্বেদিক উপায়ে ধীর গতিতে এর প্রতিকারের কয়েকটি টিপস রয়েছে,যার জেরে পাকা চুল বিলীন হতে পারে।

অকালে চুল পাকার কারণ কী?

আয়ুর্বেদশাস্ত্র অনুযায়ী, অকালে চুল পেকে যাওয়ার পিছনে রয়েছে পিত্ত ও বাত দোষের ভারসাম্যহীনতা। রঞ্জক পিত্ত, পিত্তদোষের একটি অংশ, যা চুলের রঙের জন্য দায়ী। রঞ্জন পিত্তের কোনও ভারসাম্যহীনতায় মেলানিনের উত্‍পাদন কমিয়ে দিতে পারে। তার ফলে চুলে পাক ধরে। এছাড়া জেনেটিক্স, পরিবেশগত কারণ, মানসিক চাপ, সঠিক না খাওয়ার কারণে অকালে চুল পেকে যায়।

ঘরোয়া ও আয়ুর্বেদিক উপায়

নারকেল তেলে কারি পাতা:

একটি পাত্রের মধ্যে নারকেল তেল নিন ও তাতে এক মুঠো সতেজ কারি পাতা দিয়ে সেদ্ধ করুন। যতক্ষণ না এটির রঙ কালো হয়ে যায়, ততক্ষণ ফোটাতে থাকুন। ঠান্ডা হলে পাকা চুলের উপর ব্যবহার করতে পারেন।

আমলকি এবং মেথি হেয়ার মাস্ক:

তাজা আমলা কয়েক টুকরো করে জলের মধ্যে ফোটাতে দিন। ঠান্ডা হয়ে গেলে, মেথি গুঁড়ো যোগ করুন । মিশ্রণটির রঙ কালো হলে মাথার ত্বক থেকে আগা পর্যন্ত মাস্কটি প্রয়োগ করুন এবং এক ঘন্টার জন্য রাখুন। শুকিয়ে গেলে হালকা শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

টি ওয়াশ:

টি ওয়াশের সঙ্গে পাকা চুল কালো করার পুরানো পদ্ধতি। এটি অত্যন্ত সহজ এবং কার্যকর পদ্ধতি। চায়ের ট্যানিন রূপালী চুলের সঙ্গে অস্থায়ী বাদামী-কালো চুলের রঙ যোগ করে।টি ওয়াশের কারণে চুলের প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতা বাড়াতে সাহায্য করে।

হেনা এবং কফি:

সাধারণ মেহেন্দির একটি প্রাকৃতিক রঙ রয়েছে। কফির সঙ্গে ভাল করে মিশিয়ে একটি সুন্দর প্রাকৃতিক রঙ তৈরি করুন। একটি পাত্রের মধ্যে প্রাকৃতিক মেহেন্দি পাউডার নিন এবং তাতে ২ চা চামচ গ্রাউন্ড কফি পাউডার মিশিয়ে নিন। চা বা সাধারণ জল দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন। চুলে লাগানোর পরে এক ঘণ্টা রেখে দিন। তারপরে চুলের ডগায় মাথার ত্বক ঢেকে একটি ঘন কোট লাগান। সম্পূর্ণ শুকিয়ে গেলে ধুয়ে ফেলুন।

কেরালা আয়ুর্বেদ: নীলিব্রিংদি কেরাম একটি হেয়ার টনিক তেল যা চুলের শক্তি বৃদ্ধি এবং বৃদ্ধি এবং অকাল ধূসর হওয়াকে বিলম্বিত করে। এটিতে “কেশ্য” বা চুলের স্বাস্থ্যকর ভেষজগুলির একটি শক্তিশালী মিশ্রণ রয়েছে।

নীল বা নীলি: অকাল ধূসর হতে দেরি করে; ফলস ডেইজি বা ভৃঙ্গরাজ চুলে চকচকে যোগ করে এবং মজবুত করে শীতের চেরি বা কর্ণফোটা খুশকি থেকে মুক্তি দেয়। অন্যান্য উপাদান হল আমলা, লিকোরিস বা যষ্টিমধু এবং রোজারি মটর বা গুঞ্জা।  নারকেল তেলে দুধ দিয়ে এই ভেষজগুলি ভাল করে মিশিয়ে নিন। নীলিব্রিংদি কেরাম হল একটি ভেষজ চুলের তেল যা অকালে পাকা থেকে মুক্তি পেতে সাহায্য করে। চুলের শক্তি বৃদ্ধি করে, চুলের ক্ষতি প্রতিরোধ করে এবং খুশকি কমায়।

আরও পড়ুন: Remove Your Makeup: মেকআপ তোলার জন্য দামি পণ্য নয়, রান্নাঘরেই লুকিয়ে রয়েছে সেরা উপাদান!

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla