Goa Liquor: গোয়ার সমুদ্রতটে নিষিদ্ধ মদ্যপান, নিয়ম ভাঙলে গুনতে হতে পারে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

TV9 Bangla Digital

TV9 Bangla Digital | Edited By: megha

Updated on: Nov 03, 2022 | 12:35 PM

Goa Tourism: ব্যাচেলর ট্রিপে গোয়া আর সমুদ্রতটে বসে মদ্যপান—প্রত্যেক ভারতীয় পর্যটকের বাকেট লিস্টে থাকে এই প্ল্যান। সময় এসেছে এই প্ল্যান পরিবর্তন করার।

Goa Liquor: গোয়ার সমুদ্রতটে নিষিদ্ধ মদ্যপান, নিয়ম ভাঙলে গুনতে হতে পারে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা

আসন্ন শীতের ছুটিতে গোয়ায় মদ্যপানের পরিকল্পনা করছেন? গুনতে হতে পারে ৫ হাজার টাকা। গোয়ার সমুদ্রতটে নিষিদ্ধ হল মদ্যপান। পাশাপাশি রান্নাও করা যাবে না গোয়ার সমুদ্র সৈকতে। নিয়ম ভাঙলে কঠোর আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হতে পারে। এছাড়াও জরিমানা হতে পারে ৫ থেকে ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত। এই নতুন নিয়মে শোকের ছায়া নামতে পারে পর্যটকদের মধ্যে। সোমবার একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে গোয়া পর্যটন দফতর। সেখানে স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে এখন থেকে গোয়ার সমুদ্র সৈকতে মদ্যপান, রান্না করা, আগুন জ্বালানো নিষিদ্ধ।

ব্যাচেলর ট্রিপে গোয়া আর সমুদ্রতটে বসে মদ্যপান—প্রত্যেক ভারতীয় পর্যটকের বাকেট লিস্টে থাকে এই প্ল্যান। এমনকী গোয়া ভ্রমণের প্রধান আকর্ষণ ছিল এই সমুদ্র সৈকতে বসে মদ্যপান। এত দিন পর্যন্ত কোনও রকম নিয়ম না মেনেই মদ্যপান করা যেত গোয়ার সমুদ্রতটে। অপরাধ হিসেবে গণ্য ছিল না। এমনকী সমুদ্রতটে রান্না-বান্নাও করতেন অনেকে। আর গোয়ার বিচে পার্টি—সে তো জনপ্রিয়। তবে এই সব কিছুই নিষিদ্ধ হল গোয়ায়।

এখানেই শেষ নয়। গোয়ার অন্যতম মূল আকর্ষণের তালিকায় ছিল গোয়ার ওয়াটার স্পোর্টস। এছাড়াও গোয়ার সমুদ্র সৈকতেও নানা ধরনের খেলা ছিল। সেখানেও নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। গোয়ার সমুদ্রে সব রকমের খেলা বন্ধ করা হচ্ছে। গোয়া সরকারের তরফে দায়ের করা নির্দেশিকায় ওয়াটার স্পোর্টসও নিষিদ্ধ করা হয়েছে। তবে নির্দিষ্ট কিছু এলাকা চিহ্নিত করা হয়েছে যেখানে ওয়াটার স্পোর্টস, বোটিং করা যাবে। গোয়ার বিচে কোনও রকম দোকান করা যাবে না। সমুদ্রতটে পণ্য বিক্রি করা যাবে না। ‘গোয়া টুরিস্ট প্লেসেস প্রোটেকশন অ্যান্ড মেন্টেনেন্স অ্যাক্ট, ২০০১’-এর আওতায় এগুলোকে ‘উপদ্রব’ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।

এই খবরটিও পড়ুন

মদ্যপ অবস্থায় গোয়ার সমুদ্র সৈকতে গাড়ি চালানোর দৃশ্য নেটিজেনদের কাছে নতুন নয়। সোশ্যাল মিডিয়ার দরুন এই ধরনের ভাইরাল ভিডিয়ো প্রায়শই দেখা যায়। পাশাপাশি সমুদ্র সৈকত জুড়ে পরে থাকে প্ল্যাটিক, পলিথিন, মদের বোতল এবং অন্যান্য বর্জ্য পদার্থ। এতে নষ্ট হচ্ছে গোয়ার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য। তাই গোয়ার সৌন্দর্য বজায় রাখতে নিষিদ্ধ করা হয়েছে মদ্যপান, রান্না করা, আগুন জ্বালানো, পণ্য বিক্রি, ওয়াটার স্পোর্টস ইত্যাদি।

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla