Accident: প্রসূতিকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনা, মৃত ২

Accident: প্রসূতিকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে দুর্ঘটনা, মৃত ২
শোকগ্রস্ত পরিবার পরিজনেরা। নিজস্ব চিত্র।

Ambulance Accident: প্রসূতিকে নিয়ে হাসপাতালে যাওয়ার পথে ভয়াবহ দুর্ঘটনা। অ্যাম্বুলেন্স দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল দুই মহিলার।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: সৈকত দাস

Nov 11, 2021 | 6:25 PM

দক্ষিণ ২৪ পরগনা: প্রসূতিকে নিয়ে হাসপাতালে যাওয়ার পথে ভয়াবহ দুর্ঘটনা। অ্যাম্বুলেন্স দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল দুই মহিলার। গুরুতর জখম অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি হলেন ওই মহিলা। জানা গিয়েছে, প্রসূতি আসমিরা বিবি ডায়মন্ড হারবার মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। পুলিশ সূত্রে খবর, মৃতদের নাম সাজিদা বিবি (৫২) ও আমিনা বিবি (৪০)। স্থানীয় বকচর গ্রামের বাসিন্দা তাঁরা। শুক্রবার সকালে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে কুলপি থানার গোপালনগর মোড়ের কাছে ১১৭ নম্বর জাতীয় সড়কে। দুর্ঘটনার পর থেকে অ্যাম্বুলেন্স চালক পলাতক। তার খোঁজ চালাচ্ছে পুলিশ।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিন ভোরে কুলপির বকচর গ্রামের বাসিন্দা আসমিনার বিবির প্রসব যন্ত্রণা ওঠায় তড়িঘড়ি বাড়ির লোকজনেরা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য অ্যাম্বুলেন্স ডাকে। প্রসূতি মহিলাকে অ্যাম্বুলেন্সে করে কুলপি ব্লক হাসপাতলে নিয়ে যাওয়ার পথে স্থানীয় গোপালনগর মোড়ের কাছে আচমকা অ্যাম্বুলেন্সটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে জাতীয় সড়কের পাশে একটি দেওয়ালে ধাক্কা মারে। মুহূর্তের মধ্যে দুমড়ে-মুচড়ে যায় অ্যাম্বুলেন্সটি। প্রসূতি ছাড়াও অ্যাম্বুলেন্সের ভেতরে ছিলেন মা সাজিদা বিবি ও কাকিমা আমিনা বিবি। ঘটনাস্থলে মৃত্যু হয় দু’জনের। স্থানীয়রা তড়িঘড়ি আসমিনার বিবিকে উদ্ধার করে কুল্পি ব্লক হাসপাতলে নিয়ে গেলে চিকিৎসকেরা ডায়মন্ডহারবার হাসপাতালে স্থানান্তরিত করেন।

প্রসূতির বাবার কথায়, “আমার স্ত্রী ও ভাবি ছিল মেয়ের সঙ্গে। আমি দেখলাম, তখনও গাড়ি আসেনি। গাড়িতে তুলে দিয়ে বাড়ি আসি। ঘরে এসে পাঁচ মিনিট-ও বসিনি। তার পর ফোনের ফোন। বলল, গাড়িটা অ্যাক্সিডেন্ট হয়েছে। কোথায় অ্যাক্সিডেন্ট হয়েছে, এটা আর কেউ বলতে পারেনি। তার পর খোঁজ নিয়ে দেখলাম গোপালনগরের পোলের কাছে গাড়িটা পড়ে আছে।”

তিনি যোগ করেন, ওই গাড়িওয়ালার একটা ফটো পেয়েছিলাম। ওখানে গিয়ে দেখি দু জন ডেড। আমি আর কী বলব! এই ঘটনায় শোকের ছায়া এলাকায়। এখন ওই অ্যাম্বুলেন্স চালকের খোঁজ চালাচ্ছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, বুধবার নদিয়ায় ঘটে গিয়েছে এক মর্মান্তিক ঘটনা। যদিও সেটা পথ দুর্ঘটনা নয়। জাতীয় সড়কে অবরোধের জেরে শিশুমৃত্যুর হয়। জগদ্ধাত্রী পুজোর আয়োজন করতে দিতে হবে। এই দাবি নিয়ে মঙ্গলবার বিকেল থেকে নদিয়ার ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কে অবরোধ হয়। সেই অবরোধে আটকে যায় একটি অ্য়াম্বুলেন্স। এক সাত বছরের অসুস্থ শিশুকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালে। কিন্তু, শেষ রক্ষা হল না। অবরোধের জেরে অ্যাম্বুলেন্স আটকে যেতেই হাসপাতালে পৌঁছনোর আগেই মৃত্য়ু হল শিশুর। অভিযোগ, ঘটনাস্থলে পুলিশ উপস্থিত থেকেও কোনও পদক্ষেপ করেনি।

মর্মান্তিক এই ঘটনার কথা খবরে সম্প্রচার হতে পরে নড়েচড়ে বসে প্রশাসন। পুলিশ কোতোয়ালি থানায় নিয়ে যায় অ্যাম্বুলেন্সটিকে। আন্দোলনকারীদের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে মৃত শিশুটির পরিবার। শেষ পাওয়া খবর অবধি মোট সাতজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আরও পড়ুন: Extra Marital: ‘অন্য সম্পর্কে রয়েছে’, ১২ বছরের ছেলের সামনে বউকে কুপিয়ে খুন করলেন স্বামী! 

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA