‘শীতলকুচি নিয়ে কোনও ভুল বলিনি,’ অডিয়ো ক্লিপ নিয়ে সাফাই মমতার

"তদন্তের আওতায় আপনি আসবেন মিস্টার মোদী। কাউকে ছাড়ব না। অন্যায় করলে ফল ভুগতেই হবে।'' প্রধানমন্ত্রীকে তোপ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee)।

'শীতলকুচি নিয়ে কোনও ভুল বলিনি,' অডিয়ো ক্লিপ নিয়ে সাফাই মমতার
ছবি: ফেসবুক

পূর্ব বর্ধমান: “আমি কোনও ভুল কথা বলিনি। বলেছিলাম মৃতদেহ রেখে দাও।” শীতলকুচি (Shitalkuchi) কাণ্ডে বিজেপি (BJP)-র তরফে ভাইরাল ভিডিয়ো প্রসঙ্গে এমনই জানালেন মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। শনিবার পূর্ব বর্ধমানের গলসির সভা থেকে মমতা ভাইরাল হওয়া অডিয়ো ক্লিপের সত্যতা কার্যত মেনে নিয়ে তাঁর ফোন ট্যাপ করা হচ্ছে বলে সরাসরি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (PM Narendra Modi)-র ওপর দায় চাপান।

শীতলকুলি নিয়ে তাঁর ফোন কথোপকথন ঘিরে উত্তাল রাজ্য রাজনীতি। তার মধ্যেই পূর্বস্থলী উত্তর ও দক্ষিণ কেন্দ্রের জন্য দলীয় জনসভা করেন মমতা। শুক্রবার বিজেপি আইটি সেলের প্রধান অমিত মালব্য একটি অডিও ক্লিপ প্রকাশ্যে আনেন। সেখানে শোনা যায়, চতুর্থ দফার ভোটে শীতলকুচিতে চার জনের মৃত্যুর ঘটনা নিয়ে আলোচনা চলছে। সেখানে একজন মহিলা কণ্ঠস্বর শোনা যায়। বিজেপির দাবি, ওই মহিলা কণ্ঠস্বর স্বয়ং বাংলার মুখ্যমন্ত্রীর। ফোনের আরেক প্রান্তের পুরুষ কণ্ঠস্বরটি শীতলকুচি কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী পার্থপ্রতিম রায়ের। এই অডিয়ো ক্লিপ প্রকাশ্যে এনে বিজেপি দাবি করে তৃণমূল নেত্রী লাশের রাজনীতি করতে চান। শনিবার খোদ প্রধানমন্ত্রী মোদীও ওই অডিও ক্লিপ নিয়ে কটাক্ষ করেছেন মমতাকে। যদিও তৃণমূল নেত্রীর অভিযোগ, “বিজেপি দল বেঁধে পাবলিসিটি করেছে।” তিনি হুঙ্কার দিয়ে বলেন, “শীতলকুচি নিয়ে যা হয়েছে ছেড়ে দেব?”

চতুর্থ দফার ভোটে শীতলকুচির ঘটনা নিয়ে কেন ওই সব কথা বলেছিলেন তারও ব্যাখ্যা দেন মমতা। বলেন, “আমি কী করে যাবো সেদিন? আমি ওই কেন্দ্রের ভোটার না, তাই ভোটের দিন সেখানে যেতে পারব না। তাই বলেছিলাম মৃতদেহ রেখে দাও।” পরক্ষণেই মমতার প্রশ্ন, “একজন মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ হয়ে যাচ্ছে! প্রধানমন্ত্রী বলুন আপনি ট্যাপ করিয়েছেন কিনা। আপনি না করলে কে করল মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ?”

মমতার দাবি, ফোন ট্যাপিংয়ের দায় নিয়ে পদত্যাগ করুন মোদী। মুখ্যমন্ত্রীর হুঁশিয়ারি, “তদন্তের আওতায় আপনি আসবেন মিস্টার মোদী। কাউকে ছাড়ব না। অন্যায় করলে ফল ভুগতেই হবে।” প্রধানমন্ত্রীকে তোপ দেগে মমতা বলেন, “প্রধানমন্ত্রী আপনি আমার ফোন ট্যাপ করেছেন? আপনার লজ্জা করে না একজন মুখ্যমন্ত্রীর ফোন ট্যাপ করতে? আপনি যদি না করেন তাহলে ফোনের সত্যতা স্বীকার করলেন কীভাবে?”

আরও পড়ুন: অডিয়ো: ‘এসপি ও আইসিকে ফাঁসাতে হবে’, শীতলকুচি কাণ্ডে মমতার ফোনালাপ প্রকাশ্যে আনল বিজেপি

এরপরেই মমতার ঘোষণা, “সিআইডি তদন্তের নির্দেশ দেব। এটা বড় দুর্নীতি।” বলেন, “আমি কার সঙ্গে কথা বলছি। সব ট্যাপ করা হচ্ছে। এসব বিজেপির কাজ। কে কে এই খেলায় আছে, আমি খুঁজে বের করবই। সিআইডি তদন্তের নির্দেশ দেব।”

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla