আরও গুরুত্ব পাবে সম্প্রচার নিয়ে দর্শকদের অভিযোগ, সংশোধিত হল কেবল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক আইন

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, সাধারণ মানুষের সুবিধার্থেই একটি স্বচ্ছ পরিচালন পদ্ধতি আনার জন্যই আইনে সংশোধন করা হয়েছে।

আরও গুরুত্ব পাবে সম্প্রচার নিয়ে দর্শকদের অভিযোগ, সংশোধিত হল কেবল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক আইন
প্রতীকী চিত্র।

নয়া দিল্লি: ডিজিটাল মাধ্যমের আইনে পরিবর্তন আনার পর এ বার কেবল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক আইনেও পরিবর্তন করা হল। বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক(Information and Broadcasting Ministry)-র তরফে কেবল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক (সংশোধনী) আইন ২০২১ (Cable Television Networks (Amendment) Rules, 2021) সম্পর্কে সরকারি নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, সাধারণ মানুষের সুবিধার্থেই একটি স্বচ্ছ পরিচালন পদ্ধতি আনার জন্যই আইনে সংশোধন করা হয়েছে। এই বিষয়ে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী প্রকাশ জাভাড়েকরও টুইট করে জানান, “কেবল টেলিভিশন নিয়ে দেশের নাগরিকদের যাবতীয় অভিযোগের নিষ্পত্তি করার জন্য বিধিবদ্ধ ব্যবস্থাপনা গড়ে তোলা হয়েছে। একইসঙ্গে সিটিএনের নিয়মের অধীনে থাকা চ্যানেলগুলিকেও স্বীকৃতি দেওয়া হচ্ছে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের তরফে।”

সংশোধিত আইন সম্পর্কে কেন্দ্রীয় মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়, বর্তমানে নাগরিকদের টিভি চ্যানেলের কোনও অনুষ্ঠান বা বিজ্ঞাপন নিয়ে অভিযোগ থাকলে তা কমিটির কাছে জানানো হয়। একইভাবে বিভিন্ন সম্প্রচার সংস্থাও তাদের নিজস্ব নিয়মে গ্রাহকের অভিযোগ শোনা এবং তার সমাধানের কাজ করা হয়। তবে কেন্দ্রের মনে হয়েছে, গ্রাহক ও পরিষেবা প্রদানকারীর মধ্যে সুসম্পর্ক বজায় রাখতে এবং সঠিক পরিচালন নীতির জন্য আগের আইনে সংশোধনের প্রয়োজন।

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের তরফে জানানো হয়েছে, বর্তমানে গোটা দেশে মোট ৯০০টি চ্যানেলের সম্প্রচারে অনুমতি দেওয়া হয়েছে। এই সমস্ত চ্যানেলকেই কেবল টেলিভিশন নেটওয়ার্ক আইনের অধীনে অনুষ্ঠান ও বিজ্ঞাপন সম্পর্কে নীতি অনুসরণ করে চলতে হবে।

আরও পড়ুন: ক্ষমা চাওয়ার পরও রেশ কাটেনি বিতর্কের, ছত্তীসগঢ়েও রামদেবের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের 

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla