Malay Ghatak: কয়লা-কাণ্ডে দিল্লিতে হাজিরা মলয় ঘটকের, আইনমন্ত্রীর বয়ান রেকর্ড করছে ইডি

TV9 Bangla Digital

TV9 Bangla Digital | Edited By: tannistha bhandari

Updated on: Oct 28, 2021 | 3:59 PM

Coal Scam: এর আগে পরপর দু’বার হাজিরা এড়িয়ে গিয়েছেন তিনি। পরে ফের তাঁকে নোটিস দেয় ইডি। এবার দিল্লিতে ইডি-র দফতরে হাজিরা দিলেন আইন মন্ত্রী।

Malay Ghatak: কয়লা-কাণ্ডে দিল্লিতে হাজিরা মলয় ঘটকের, আইনমন্ত্রীর বয়ান রেকর্ড করছে ইডি
কয়লা-কাণ্ডে ইডি-র মুখোমুখি মলয় ঘটক (ফাইল ছবি)

নয়া দিল্লি : পরপর তিনবার এনফোর্সমেন্টের (Enforcement Directorate) দফতরে তলব করা হয়েছে রাজ্যের আইনমন্ত্রী মলয় ঘটককে (Malay Ghatak)। প্রথম দুবার সেই হাজিরা এড়িয়ে যান তিনি। অবশেষে তৃতীয়বার তলব করার পর দিল্লিতে ইডি-র দফতরে হাজিরা দিলেন তিনি। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে দিল্লিতে ইডি-র মুখোমুখি হয়েছেন আইনমন্ত্রী (Law Minister)। কয়লা-কাণ্ডে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে তাঁকে। সূত্রের খবর, আইনমন্ত্রীর বয়ান রেকর্ড করছেন ইডি-র আধিকারিকরা।

সূত্রের খবর, এ দিন দুপুরে ইডি-র দফতরে পৌঁছে গিয়েছেন তিনি। ঘণ্টা দুয়েক ধরে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে তাঁর। রাজ্যের মন্ত্রী মলয় ঘটকের বিধানসভা কেন্দ্র আসানসোল উত্তর থেকেও কয়লা পাচার হয়েছিল বলে অভিযোগ। বেআইনিভাবে কয়লা উত্তোলনও করা হয়েছে ওই অঞ্চলে। পাচারকারীদের সঙ্গে এলাকার প্রভাবশালীদের যোগেরও একটা সূত্র তদন্তকারীরা পেয়েছেন ইতিমধ্যে। সেই কারণেই জামনগর হাউজে ইডির দফতরে ডেকে পাঠানো হয় রাজ্যের আইনমন্ত্রীকে।

কয়লাকাণ্ডে তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কেও দিল্লিতে ডেকে পাঠিয়েছিল ইডি। জামনগর হাউজে ইডির অফিসে তিনি হাজিরা দিয়েছিলেন। তাঁর স্ত্রী রুজিরাকেও একই মামলায় সমন পাঠানো হয়। রুজিরা হাজিরা না দিলেও ইডি-র জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি হন অভিষেক। টানা ৯ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ চলে তাঁর। পরে ফের তাঁকে ডেকে পাঠানো হয়। যদিও দ্বিতীয়বার হাজিরা দেননি তিনি।

এরপরই ইডি-র সমনে স্থগিতাদেশ চেয়ে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন অভিষেক। তাঁর হয়ে আদালতে সওয়াল করেন সুপ্রিম কোর্টের বর্ষীয়ান আইনজীবী তথা কংগ্রেস নেতা কপিল সিব্বল। তবে, কয়লা-কাণ্ডে অবশেষে স্বস্তি পেয়েছেন অভিষেক বন্দ্যপাধ্যায়ের স্ত্রী রুজিরা বন্দ্যোপাধ্যায়। দিল্লি হাই কোর্টের নির্দেশে স্বস্তি পেয়েছেন অভিষেক-জায়া। তাঁকে সশরীরে উপস্থিত থাকতে হয়নি। কয়লা দুর্নীতি মামলায় গত ৩০ সেপ্টেম্বর পাতিয়ালা হাউস কোর্টের রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে রুজিরা দিল্লি হাইকোর্টে মামলা দায়ের করেন।

এরই মধ্যে এই কয়লা পাচারকাণ্ডে এবার অনুপ মাজি ওরফে লালার হিসাবরক্ষকের বিরুদ্ধে জারি হয়েছে ওয়ারেন্ট। অন্যদিকে এদিনই এই ঘটনায় অপর অভিযুক্ত বিনয় মিশ্রের বিরুদ্ধেও জামিন অযোগ্য ধারায় গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছে পাতিয়ালা হাউজ আদালত। ইতিমধ্যেই চার বার বিনয় মিশ্রকে তলব করেছে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের আধিকারিকরা। তবে চারবারই সেই হাজিরা এড়িয়ে গিয়েছেন বিনয়। জানিয়েছেন, তিনি এখন দেশের বাইরে। এমনকী তাঁর আইনজীবীর বক্তব্য, এখন আর ভারত নয়, দ্বীপ রাষ্ট্র ভানুয়াটুরের বাসিন্দা বিনয়।

আরও পড়ুন : শুরুতেই হোঁচট, তৃণমূলে ‘না’ গোয়া ফরওয়ার্ড পার্টির, পোস্টার ছেঁড়ার মতো মুখও পুড়বে না তো মমতার?

কয়লা ও গরু পাচারকাণ্ডে সিবিআইয়ের পর চলতি বছরের জানুয়ারিতে তদন্তে নামে ইডি। কলকাতা ও হুগলির একাধিক জায়গায় তল্লাশি চালায় তারা। তদন্তের গতিপ্রকৃতিতে নজরদারি চলে ইডির দিল্লি দফতর থেকে। রাজ্যের উচ্চপদস্থ পুলিশ আধিকারিক জ্ঞানবন্ত সিং-কেও এই মামলায় ইতিমধ্যে তলব করা হয়েছিল দিল্লিতে।

আরও পড়ুন : জিতুক বা হারুক, ভারতীয় রাজনীতির কেন্দ্রে থাকবে বিজেপিই, বিস্ফোরক প্রশান্ত কিশোর

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla