প্রসবের সময় ভুলে পেটের ভিতরেই থেকে গেল অস্ত্রোপচারে ব্যবহৃত কাপড়! গভীর সঙ্কটে মা, কাঠগড়ায় সরকারি হাসপাতাল

শাহজাহানপুরে একটি বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজে নিয়ে যাওয়া হয় নিলমকে। সেখানে সিটি স্ক্যান করতে দেখা যায়, পেটের মধ্যে এক টুকরো কাপড় পড়ে রয়েছে।

  • Publish Date - 8:42 am, Thu, 22 July 21 Edited By: ঈপ্সা চ্যাটার্জী
প্রসবের সময় ভুলে পেটের ভিতরেই থেকে গেল অস্ত্রোপচারে ব্যবহৃত কাপড়! গভীর সঙ্কটে মা, কাঠগড়ায় সরকারি হাসপাতাল
প্রতীকী চিত্র।

শাহজাহানপুর: মেয়ের জন্মের পর থেকেই অসুস্থ মা। বিভিন্ন চিকিৎসকের কাছে গিয়েও মেলেনি কোনও সুরাহা, কিছুতেই কমেনি পেট ব্যাথা। শেষমেশ সিটি স্ক্যান করাতেই জানা গেল পেটে ব্যাথার আসল কারণ। দেখা গেল, পেটের মধ্যেই পড়ে রয়েছে এক টুকরো কাপড়। বর্তমানে ওই মহিলার শারীরিক অবস্থা অত্যন্ত জটিল, তাঁকে ভেন্টিলেটর সাপোর্টে রাখা হয়েছে। চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগ আনা হয়েছে হাসপাতালের বিরুদ্ধে।

উত্তর প্রদেশের কিং জর্জ মেডিক্যাল কলেজের চিকিৎসকদের বিরুদ্ধেই উঠেছে চরম গাফিলতির অভিযোগ। জানা গিয়েছে, চলতি বছরের জানুয়ারি মাসেই গর্ভবতী অবস্থায় স্ত্রী নিলমকে হাসপাতালে ভর্তি করান রামপুরের বাসিন্দা মনোজ। ৬ জানুয়ারি সিজারিয়ান অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে তাদের একটি মেয়ে হয়। প্রথমে সবকিছু ঠিক থাকলেও বাড়ি ফিরেও পেটে ব্যাথা থেকেই যায় নিলমের। অস্ত্রোপচারের পর দীর্ঘ সময় কেটে গেলেও ব্যাথা না কমায় বিভিন্ন চিকিৎসকের দারস্থ হন মনোজ ও তাঁর স্ত্রী। কিন্তু লাভ হয়নি কোথাও।

অবশেষে শাহজাহানপুরে একটি বেসরকারি মেডিক্যাল কলেজে নিয়ে যাওয়া হয় নিলমকে। সেখানে সিটি স্ক্যান করতে দেখা যায়, পেটের মধ্যে এক টুকরো কাপড় পড়ে রয়েছে। সঙ্গে সঙ্গে তা অস্ত্রোপচার করে বের করা হয়। কিন্তু শারীরিক অবস্থার উন্নতি না হওয়ায় তাঁকে লখনউ ট্রমা সেন্টারে ভর্তি করানো হয়। সেখানে বর্তমানে ভেন্টিলেটর সাপোর্টে রয়েছেন নিলম, এমনটাই জানা গিয়েছে।

এ দিকে, চিকিৎসায় গাফিলতির অভিযোগ পেতেই কিং জর্জ মেডিক্যাল কলেজের অধ্যক্ষ রাজেশ কুমার তিন সদস্যের একটি তদন্তকারী দল গঠন করেন এবং দ্রুত রিপোর্ট জমা দিতে বলেছেন। তিনি জানান, রিপোর্টের ভিত্তিতেই অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ করা হবে। আরও পড়ুন: জন্তর মন্তরে আজ থেকে বসছে ‘কিসান সংসদ’, আন্দোলনকারীদের মানতে হবে বিশেষ শর্ত!

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla