মাঠের মধ্যে পড়ে তাজা বোমা, চোখ এড়াল না নাবালিকার, চাঞ্চল্য মেমারিতে!

মেমারি থানার পুলিশ জানিয়েছে, বোমা (Bomb) উদ্ধারের খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই ওই এলাকায় এসে পৌঁছয় পুলিশ ও বোমস্কোয়াড। ঘিরে ফেলা হয় গোটা এলাকা। মাঠ থেকে উদ্ধার হয় মোট ৪টি তাজা বোমা।

মাঠের মধ্যে পড়ে তাজা বোমা, চোখ এড়াল না নাবালিকার, চাঞ্চল্য মেমারিতে!
নিজস্ব চিত্র

পূর্ব বর্ধমান: ভোটের পরে বোমা উদ্ধারকে (Bomb rescued) কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়ালো মেমারির ২ নম্বর ব্লকের বোহার এলাকায়। শনিবার বিকেলে বোহারের বড় টিকাইপুর এলাকায় মাঠের থেকে বাড়িতে যাওয়ার সময় রাস্তার পাশে থাকা জমিতে, চারটি তাজা বমা পড়ে থাকতে দেখে এক নাবালিকা। যার মধ্য়ে একটি খোলা অবস্থায় ছিল। সঙ্গে সঙ্গে স্থানীয়দের খবর দেয় ওই নাবালিকা।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন,  মাঠের মধ্যে এমনভাবে বোমা(Bomb) পড়ে থাকতে দেখে রীতিমতো আতঙ্কিত তাঁরা। কোনও একটি বিস্ফোরণ ঘটলে প্রাণহানিও হতে পারত ওই নাবালিকার। এমনকী, ভবিষ্যতেও নিজেদের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত তাঁরা।

মেমারি থানার পুলিশ জানিয়েছে, বোমা (Bomb) উদ্ধারের খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই ওই এলাকায় এসে পৌঁছয় পুলিশ ও বোমস্কোয়াড। ঘিরে ফেলা হয় গোটা এলাকা। মাঠ থেকে উদ্ধার হয় মোট ৪টি তাজা বোমা। গোটা মাঠে আর কোথাও বোমা রাখা হয়েছে কি না তারও তল্লাশি চালায় পুলিশ। তবে কে বা কারা এই বোমা মজুত করেছিল তা এখনও স্পষ্ট নয়। তবে গোটা ঘটনা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

বোমা উদ্ধারকে কেন্দ্র করে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপানউতোর। গেরুয়া শিবিরের দাবি, এলাকায় বিজেপির(BJP)  উপর চাপ সৃষ্টি করতে বোমা মজুত করেছে তৃণমূল (TMC)। পাল্টা ঘাসফুল শিবিরের দাবি, বোমাগুলি পাওয়া গিয়েছে বিজেপি নেতা প্রশান্ত মাণ্ডির বাড়ির পাশের জমিতে।  উদ্দেশ্যুপ্রণোদিতভাবে সন্ত্রাস কায়েম করতেই ওই বোমা মজুত করছিল বিজেপি এমনটাই অভিযোগ তৃণমূল ব্লক সভাপতি মহম্মদ ইসমাইলের।

আরও পড়ুন: ভোটের পরেও অব্যাহত বোমা বাঁধার ঠেক! পুলিশি অভিযানের জেরে উদ্ধার ২৮ টি তাজা বোমা-সহ বিস্ফোরক তৈরির মশলা, গ্রেফতার ১