Corona Vaccine: রাত ৩টে থেকে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকা পাচ্ছেন না, গৌতম দেবকে ঘিরে তুমুল বিক্ষোভ

Siliguri Corona Vaccine: অভিযোগ ওঠে, স্থানীয় তৃণমূল নেতারা নিজেদের পরিচিত বেশ কিছু মানুষকে টিকার কুপন পাইয়ে দেন।

Corona Vaccine: রাত ৩টে থেকে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকা পাচ্ছেন না, গৌতম দেবকে ঘিরে তুমুল বিক্ষোভ
শিলিগুড়ি ভ্যাকসিন

শিলিগুড়ি: আবারও ভ্যাকসিন নিয়ে জারি বিতর্ক। করোনা টিকা না মেলার অভিযোগ স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশের বিরুদ্ধে। শিলিগুড়ি পৌরনিগমের প্রশাসক বোর্ডের চেয়ারম্যান গৌতম দেবকে (Gautam Deb) ঘিরে বিক্ষাভ দেখাতে থাকেন টিকা নিতে আসা ক্ষুব্ধ বাসিন্দারা। পরে তাঁর আশ্বাসে মেটে সমস্যা।

জানা গিয়েছে, ভ্যাকসিন দেওয়া জন্য শিলিগুড়ি বুদ্ধ ভারতী হাইস্কুলে টিকাকরণের একটি ক্যাম্প বসে। সেখানেই গতকাল রাত থেকে লাইনে দাঁড়ান কয়েকশো মানুষ। কিন্তু আজ সকালে ক্যাম্প শুরু হতেই তৈরি হয় বিতর্ক। অভিযোগ ওঠে, স্থানীয় তৃণমূল নেতারা নিজেদের পরিচিত বেশ কিছু মানুষকে টিকার কুপন পাইয়ে দেন। এদিকে, বাইরে তখনও অপেক্ষায় টিকা নিতে আসা রাতজাগা বহু মানুষ। শুরু হয় ক্ষোভ-বিক্ষোভ।

এক টিকাগ্রহিতা অভিযোগ করে বলেন,” আমাদের ভিতরে ঢুকতেই দেওয়া হল না। নিজেদের যেসকল মুখ চেনা মানুষজন রয়েছে তাদেরকে ভিতরে ঢুকিয়ে দিল। আগের থেকেই ওদের টোকেন দিয়ে রাখা হয়েছে। অথচ আমরা রাত তিনটে থেকে লাইন দিয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছি। ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ় দূরের কথা। প্রথম ডোজ়ও পেলাম না। বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেরানোর পরও কোনও ডোজ় পাচ্ছি না আমরা।”

আরও এক টিকা গ্রহিতা প্রশ্ন করেন,”যদি ভ্যাকসিনের ডোজ় পর্যাপ্ত না থাকে তাহলে সবাইকে টোকেন দেওয়ার অর্থ কী? যত পরিমান ভ্যাকসিন রয়েছে সেই হিসেবেই টোকেন দেওয়া উচিৎ। অনেক্ষণ আগে থেকে আমরা টোকেন নিয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছি। কিন্তু এরপরও ভ্যাকসিন পাচ্ছি না। এখন আবার বলা হচ্ছে যে টোকেন দিয়েছে তার কাছে যেতে। এখন তাহলে কার কাছে যাব? আমরা লাইনে দাঁড়িয়ে টোকেন নিয়েছি। ”

সকাল এগারটা নাগাদ ওই কেন্দ্রে পৌঁছান শিলিগুড়ি পৌরনিগমের প্রশাসক বোর্ডের চেয়ারম্যান গৌতম দেব। তাঁকে দেখেও ক্ষোভ উগরে দেন টিকা নিতে আসা বাসিন্দারা। এরপর টিকাকেন্দ্রে গেট খুলিয়ে উপস্থিত সকলকে এই ক্যাম্পে ঢুকিয়ে টিকা নেওয়ার ব্যবস্থা করে দেন পৌর প্রশাসক বোর্ডের চেয়ারম্যান। তিনি জানান, “সমস্ত মানুষকেই টিকা দেওয়া হবে। পর্যায়ক্রমে আমরা স্থানীয় এলাকাগুলিতে একাধিক ক্যাম্পের আয়োজন করছি। শহরের প্রত্যেক মানুষ টিকার প্রথম ডোজ় চলতি সেপ্টেম্বর মাসের শেষের তারিখের মধ্যে পেয়ে যাবেন। এই লক্ষ্যমাত্রা রেখে এগোচ্ছি। পাশাপাশি টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়ে সমস্যা হবে না।”

এর আগেও টিকা বিলি নিয়ে শিলিগুড়িতে নানাসময়ে বিতর্ক তৈরি হয়েছে। করোনা ভ্যাকসিন নিয়ে বিজেপি ও তৃণমূল সমর্থকদের মধ্যে বচসার ঘটনায় উত্তেজনাও ছড়ায় শিলিগুড়ি মহকুমার বাগডোগরা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে। উল্লেখ্য়, দার্জিলিং জেলায় টিকার প্রথম ডোজ ইতিমধ্যেই প্রায় ১১ লক্ষ মানুষ পেয়েছেন। দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছেন চার লক্ষ মানুষ।

আরও পড়ুন: Unknown Fever: উত্তরবঙ্গে ফের অজানা জ্বরে বলি ৩ মাসের শিশুকন্যা

Read Full Article

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla