World Hypertension Day: হাই ব্লাড প্রেশারের রোগী? সাবধান, একদিন ওষুধ না খেলেই ঘটে যাবে বিপদ

World Hypertension Day: হাই ব্লাড প্রেশারের রোগী? সাবধান, একদিন ওষুধ না খেলেই ঘটে যাবে বিপদ
সুস্থ স্বাভাবিক মানুষের শরীরে প্রেশার ১৪০/৮০ এমএম/এইচজি-এর নীচে থাকা উচিত।
Image Credit source: istockphoto.com

High Blood Pressure: সুস্থ স্বাভাবিক মানুষের শরীরে প্রেশার ১৪০/৮০ এমএম/এইচজি-এর নীচে থাকা উচিত। কিন্তু এই সংখ্যা অতিক্রম করলেই সাবধান হওয়া উচিত।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: megha

May 15, 2022 | 1:34 PM

লাইফস্টাইল ডিজিজের খাতায় নাম লিখিয়েছে উচ্চ রক্তচাপও (Hypertension)। আমাদের শরীরে রক্ত প্রবাহিত হওয়ার সময় রক্তনালীর ভিতরের দেওয়ালে যে চাপ তৈরি হয় তাকে ব্লাড প্রেশার বলে। কিন্তু সমস্যা হল প্রেশারের কোনও লক্ষণ দেখা দেয় না। যখন এটা মারাত্মক পরিস্থিতিতে পৌঁছে যায় তখন মাথা ঘোরা, বমি-বমি ভাব, নাক দিয়ে রক্ত পড়া, শ্বাসকষ্টের মতো একাধিক উপসর্গ দেখা দেয়। তাই লক্ষণ না দেখা দিলেও একটা বয়সের পর আপনাকে সচেতন থাকতে হবে এবং নিয়মিত চেকআপ করাতে হবে। কারণ সচেতন না থাকলে এবং প্রতিদিন ব্লাড প্রেশারের ওষুধ না খেলে এটি শরীরে মারণ রোগও ডেকে আনতে পারে।

সুস্থ স্বাভাবিক মানুষের শরীরে প্রেশার ১৪০/৮০ এমএম/এইচজি-এর নীচে থাকা উচিত। কিন্তু যদি আপনার ডায়াবেটিস কিংবা অন্য কোনও রোগ থাকে তখন সেটা ১৩০/৮০ কিংবা ১২৫/৭৫ প্রেশার হতে পারে। কিন্তু এই সংখ্যা অতিক্রম করলেই সাবধান হওয়া উচিত।

এমন ঘটনা আপনার প্রায়শই দেখে থাকবেন যে, একদিন প্রেশারের ওষুধ খায়নি, আর তাতেই স্ট্রোক বা হার্ট অ্যাটাকে মৃত্যু হয়েছে। চিকিৎসকদের মতে, হাই ব্লাড প্রেশার থাকলে একদিনও বাদ দেওয়া যাবে না প্রেশারের ওষুধ। যে দিন বাদ দেবেন, সেই দিনই ঘটে যাবে কোনও অঘটন। হাইপারটেনশন হলে শরীরের একাধিক প্রভাব দেখা দেয়।

চোখের উপর প্রভাব পড়ে- উচ্চ রক্তচাপ রেটিনার অভ্যন্তরীণ আবরণ, চোখের পিছনের অংশের ক্ষতি করতে পারে। তাই রেটিনায় কোনও সমস্যা থাকলে তা উচ্চ রক্তচাপের লক্ষণ। এটি দৃষ্টিশক্তির উপর প্রভাব ফেলে।

হার্টের উপর প্রভাব পড়ে- ধমনীতে প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি এবং ধমনী সংকীর্ণ হওয়ার কারণে হৃৎপিণ্ডকে রক্ত ​​পাম্প করতে আরও বেশি পরিশ্রম করতে হয়। হৃৎপিণ্ডের পেশী পুরু ও শক্ত হয়ে যায়। এর পাশাপাশি হৃদপিণ্ডের বাম দিকেও ধীরে ধীরে বড় হতে থাকে, যার ফলে রক্ত ​​পাম্প করা কঠিন হয়ে পড়ে, যা হার্ট ফেলিওরের কারণ।

মস্তিষ্কের উপর প্রভাব পড়ে- উচ্চ রক্তচাপ স্ট্রোকের একটি প্রধান কারণ। উচ্চ রক্তচাপের কারণে ধমনীর দেওয়াল দুর্বল হতে শুরু করে, যার কারণে এটি মস্তিষ্কে ফুলে যায়। একে অ্যানিউরিজম বলা হয়। উচ্চ রক্তচাপের কারণে এই অ্যানিউরিজমগুলি হঠাৎ ফেটে যায়, যা স্ট্রোকের দিকে পরিচালিত করে।

এই খবরটিও পড়ুন

কিডনির উপর প্রভাব পড়ে- উচ্চ রক্তচাপ কিডনির লবণ নিয়ন্ত্রণ এবং শরীরে জল ধরে রাখার ক্ষমতাকে প্রভাবিত করে, যার ফলে উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা আরও খারাপ হয়। উচ্চ রক্তচাপ কখনও কখনও কিডনির ক্ষতিও করতে পারে।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA