Ayurvedic Tips: নিম বেগুন তো খান কিন্তু ফুল কি খেয়েছেন? করিনার পুষ্টিবিদের থেকে জেনে নিন উপকারিতা

Neem: আয়ুর্বেদ বিশেষজ্ঞ রুজুতা দিবাকর তাঁর ইনস্টাগ্রামে নিম ফুলের উপকারিতা শেয়ার করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, এই নিম আমাদের শরীরের জন্য কতটা উপকারী।

Ayurvedic Tips: নিম বেগুন তো খান কিন্তু ফুল কি খেয়েছেন? করিনার পুষ্টিবিদের থেকে জেনে নিন উপকারিতা
TV9 Bangla Digital

| Edited By: megha

May 30, 2022 | 10:02 AM

আয়ুর্বেদ নিম (Neem) গাছকে ওষুধ হিসেবে ব্যবহার করা হয়। নিম গাছের ছাল থেকে শুরু করে এর পাতা, ডাল সমস্ত কিছুই ব্যবহার করা হয়। এখনও অনেক মানুষ আছেন, যাঁরা নিম ডাল দিয়ে দাঁত মাজেন। একই ভাবে নিম গাছের ফুলও আয়ুর্বেদে ব্যাপক ভাবে ব্যবহৃত হয়। শুনতে অবাক লাগছে? আয়ুর্বেদে নিম গাছের ফুলের উপকারিতা সম্পর্কে উল্লেখ রয়েছে। নিম ফুলেরও জুঁই ফুলের মতো সুন্দর গন্ধ রয়েছে। যদি নিম পাতার উপকারিতার দিকে এক নজর দেখেন, এতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি বৈশিষ্ট্য রয়েছে। একই ভাবে নিমের ফুলও অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল, অ্যান্টিপ্যারাসাইটিক এবং অ্যান্টিডায়াবেটিক বৈশিষ্ট্যে ভরপুর। পুষ্টিবিদ রুজুতা দিবাকর তাঁর ইনস্টাগ্রামে নিম ফুলের উপকারিতা শেয়ার করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, এই নিম আমাদের শরীরের জন্য কতটা উপকারী। এর পাশাপাশি এই নিম ফুল কীভাবে সেবন করবেন সেটাও জানিয়েছেন তিনি।

রুজুতা বলেন, নিম ফুলের শরবত খেলে বেশি উপকারিতা পাওয়া যায়। আর নিম ফুলের শরবত আপনি কীভাবে তৈরি করবেন, সেটাও দেখিয়েছেন তিনি। কিন্তু তার আগে এই শরবত পান করলে কী-কী উপকারিতা পাওয়া যাবে, চলুন দেখে নেওয়া যাক এক নজরে…

নিম ফুল আয়ুর্বেদে পিত্তকে শান্ত করার জন্য ব্যবহার করা হয়। শরীরে পিত্ত বেড়ে গেলে নিম ফুল খেলে অনেক উপকার মেলে। নিম ফুল শরীরের তাপ ও পিত্তের উপসর্গ প্রশমিক করতে সাহায্য করে। শরীরে পিত্ত বেড়ে আপনি এই নিম ফুলের শরবত পান করতে পারেন।

ত্বকের সমস্যা দূর করতে সাহায্য করে নিম ফুল। নিম ফুলের মধ্যে অ্যান্টিসেপটিক গুণ রয়েছে। আয়ুর্বেদে সোরিয়াসিস এবং একজিমার চিকিৎসায় ব্যাপক ভাবে ব্যবহৃত হয় নিম ফুল। একাধিক চর্মরোগের মোক্ষম দাওয়াই হল এই নিম ফুল। নিম ফুলের শরবত পান করলে এটি রক্তকে পরিশুদ্ধ করে এতে ত্বকের সমস্যা অনেক কমে যায়। এছাড়াও নিম ফুলকে গুঁড়ো করে ত্বকের ওপর লাগাতে পারেন।

ডায়াবেটিসের সমস্যায় ভুগলে নিয়মিত পান করুন নিম ফুলের শরবত। নিম ফুলে ডায়াবেটিস প্রতিরোধক গুণ রয়েছে। এই ক্ষেত্রে, এটি রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করতে পারে।

আয়ুর্বেদ শাস্ত্রের মতে, নিম ফুল পিত্তের পাশাপাশি কাফা নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। শরীরে কফ বেড়ে গেলে চিকিৎসকের পরামর্শে নিম ফুল খেতে পারেন। এটিতে অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট বৈশিষ্ট্য রয়েছে। যা শরীরের যাবতীয় সমস্যা কমাতে সাহায্য করে।

এই খবরটিও পড়ুন

২ গ্লাস জলে ১ চামচ নিম ফুলের গুঁড়ো মিশিয়ে নিন। এতে সামান্য আদা কুচি, আর কাঁচা আম কুচি দিন। সামান্য গোলমরিচ গুঁড়ো আর গুড় মিশিয়ে পান করুন নিম ফুলের শরবত।

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla