পকেটে ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ডিগ্রি, সম্পত্তির পরিমাণ ৫ কোটিরও বেশি, গুজরাটের নতুন মুখ্যমন্ত্রীকে চেনেন?

Bupendra Patel: গুজরাটের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা উত্তর প্রদেশের রাজ্যপাল আনন্দীবেনের ঘনিষ্ট হিসাবেই পরিচিত ভূপেন্দ্র পটেল। এখনও অবধি একবারই তিনি বিধায়ক হয়েছেন।

পকেটে ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের ডিগ্রি, সম্পত্তির পরিমাণ ৫ কোটিরও বেশি, গুজরাটের নতুন মুখ্যমন্ত্রীকে চেনেন?
ভূপেন্দ্র প্যাটেলে ভর করেই কি পাতিদারদের ফের কাছে টানতে চাইছে বিজেপি?

নয়া দিল্লি: আচমকা পদত্যাগ করে সকলকে চমকে দিয়েছিলেন গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপাণী (Vijay Rupani)। নয়া মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে উঠে এসেছিল চার বিজেপি নেতার নাম। তবে মুখ্যমন্ত্রীর পদত্যাগের থেকেও বেশি চমক থাকল নয়া মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচনে। সকলকে অবাক করে গুজরাটের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে বেছে নেওয়া হল মাত্র একবারের বিধায়ক ভূপেন্দ্র পটেল(Bhupendra Patel)-কে।

শনিবার দুপুরে আচমকা রাজভবনে হাজির হয়েছিলেন বিজয় রূপাণী। প্রথমে মনে করা হয়েছিল, রাজ্যর কোনও নিয়ম বা সাংবিধানিক ইস্যু নিয়েই তিনি রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করতে এসেছেন। কিন্তু রাজভবন থেকে বেরিয়ে এসেই তিনি সকলকে চমকে দিয়ে ঘোষণা করেন, মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন তিনি।

রূপাণীর ইস্তফার পরই নতুন মুখ্যমন্ত্রী কে হবেন, তা নিয়ে জল্পনা শুরু হয়। নীতিন পটেল, মনসুখ মাণ্ডব্য, আরসি ফালদু, পুরুষোত্তম রুপালার নাম উঠে আসে নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে। রাতেই মুখ্যমন্ত্রী বাছাইয়ের জন্য বিশেষ দায়িত্ব দেওয়া হয় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর (Narendra Singh Tomar) ও প্রহ্লাদ যোশী (Pralhad Joshi)-কে।

এ দিনের দলীয় পরিষদীয় বৈঠকে সকল বিজেপি নেতা-বিধায়কদের মতামত নেওয়া হয়। বৈঠক শেষে জানা যায়, গুজরাটের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হচ্ছেন ভূপেন্দ্র পটেল। শোনা গিয়েছে, সদ্য প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রুপাণীই সুপারিশ করেছেন নতুন মুখ্যমন্ত্রীর নাম। আগামিকালই তিনি শপথ নেবেন বলে জানা গিয়েছে।

 কে এই ভূপেন্দ্র পটেল?

গুজরাটের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা উত্তর প্রদেশের রাজ্যপাল আনন্দীবেনের ঘনিষ্ট হিসাবেই পরিচিত ভূপেন্দ্র পটেল। এখনও অবধি একবারই তিনি বিধায়ক হয়েছেন। গুজরাটের ঘাটলোধিয়া আসন থেকে ২০১৭ সালের বিধানসভা নির্বাচনে কংগ্রেস প্রার্থী শশীকান্ত পটেলকে এক লক্ষের চেয়েও বেশি ভোটে জিতেছিলেন তিনি।

বিধায়ক হওয়ার আগে দীর্ঘ সময় তিনি আহমেদাবাদ নগরোন্নয়ন দফতরের চেয়ারম্যান ছিলেন। আমদাবাদ  পৌরসভার স্ট্যান্ডিং কমিটির দায়িত্বভারও সামলিয়েছেন তিনি। দলীয় সূত্রে খবর, পটেল বা পতিদার সম্প্রদায়ের প্রতিনিধি হিসাবেই ভূপেন্দ্রকে নয়া মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে বেছে নেওয়া হয়েছে। কারণ আগামী বছরই গুজরাটে বিধানসভা নির্বাচন রয়েছে এবং বিজেপির ভোটব্যাঙ্কের একটি বড় অংশই পটেল সম্প্রদায় থেকে আসে।

সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিংয়ে ডিপ্লোমাধারী ভূপেন্দ্র পটেল কোটি টাকার মালিকও বটে। ২০১৭ সালের নির্বাচনের সময় কমিশনের কাছে জমা দেওয়া তথ্যে জানানো হয়েছে, স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তি মিলিয়ে ভূপেন্দ্র পটেলের মোট সম্পত্তির পরিমাণ পাঁচ কোটিরও বেশি।

মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার দৌড়ে নাম না থাকলেও আচমকাই ভূপেন্দ্র যাদবের নাম আচমকা ঘোষণা হওয়ায় আশ্চর্য হয়েছেন দলীয় সদস্যরাও। তবে নয়া মুখ্যমন্ত্রীর নাম ঘোষণা হওয়ার পরই শুভেচ্ছা জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। তিনি টুইট করে লেখেন, “বিজেপির পরিষদীয় বিভাগের নেতা হিসাবে ভূপেন্দ্র পটেল নির্বাচিত হওয়ায় তাঁকে অনেক শুভেচ্ছা জানাচ্ছি। আমি নিশ্চিত, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে গুজরাটের উন্নয়নের যাত্রা নতুন শক্তি পাবে এবং রাজ্য সুশাসন ও জনকল্যাণের লক্ষ্যেই কাজ করে যাবে।”

আরও পড়ুন: স্কুলের গেট থেকে তুলে নিয়ে গিয়েছিল নাবালিকাকে! ‘ধর্ষক’ আসিফ ও ইরফানের ফাঁসির সাজা বহাল রাখল হাইকোর্টও

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla