কেরল ছাড়িয়ে জ়িকার হানা অন্য রাজ্যেও, বাড়ছে আতঙ্ক

Zika Virus: মহারাষ্ট্রে প্রথমবার জ়িকা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছিলেন এক মহিলা। যদিও এখন তিনি পুরোপুরি সুস্থ।

কেরল ছাড়িয়ে জ়িকার হানা অন্য রাজ্যেও, বাড়ছে আতঙ্ক
প্রতীকী চিত্র।

পুনে: কিছুদিন আগেই কেরলে জ়িকা ভাইরাসের প্রকোপ দেখা গিয়েছিল। এ বার মহারাষ্ট্রের পুনেতে আক্রান্ত হলেন এক মহিলা। জানা গিয়েছে, পুনের ওই মহিলার শরীরে ধরা পড়েছে চিকুনগুনিয়াও। তবে মহারাষ্ট্রের স্বাস্থ্য দফতর জানিয়েছে, আপাতত সুস্থই আছেন ওই মহিলা। তাঁর পরিবারেও কারও শরীরে কোনও উপসর্গ দেখা যায়নি।

স্বাস্থ্য দফতরের তরফ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, জুলাইয়ের প্রথম দিকে পুরন্দর তেহসিলের বেলসার গ্রামে বেশ কয়েকজন জ্বরে আক্রান্ত হন। পাঁচজনের শরীর থেকে নমুনা সংগ্রহ করে ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ভাইরোলজিতে পাঠানো হয়। এর মধ্যে তিনজনের শরীরে চিকুনগুনিয়া ধরা পড়ে। পরে ২৭ থেকে ২৯ জুলাই বেলসারে যান ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ভাইরোলজির একটি টিম। সেই সময় ৪১ জনের রক্ত পরীক্ষা করে দেখা যায়, ২৫ জনই চিকুনগুনিয়ায় আক্রান্ত।

এরপরই তৎপর হয় স্বাস্থ্য দফতর। শনিবারই ওই গ্রামে একটি টিম পরিদর্শনে যায় ও গ্রামবাসীদের সতর্কতা নেওয়ার কথা বলে। জিকা ভাইরাস ধরা পড়ার পর স্বাস্থ্য দফতরের তরফ থেকে সাধারণ মানুষের কাছে আবেদন করেছেন যাতে অযথা কেউ উদ্বিগ্ন না হন। মশাবাহিত এই ভাইরাস থেকে বাঁচতে প্রয়োজনীয় সতর্কতা নেওয়ার কথা বলেন স্বাস্থ্য দফতরের কর্মীরা। মহারাষ্ট্রে এই প্রথম জ়িকা ভাইরাস ধরা পড়লেও, কিছুদিন আগেই কেরলে বেড়েছিল এই ভাইরাসের সংক্রমণ। ৬৩ জন আক্রান্ত হন সে রাজ্যে।

আর পাঁচটা মশাবাহিত রোগের মধ্যে জ়িকাও একটি। মশার কামড় থেকেই ছড়াই এই ভাইরাস। সাধারণত এডিস মশা কামড়ালে জ়িকা হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এরাই এই ভাইরাসের বাহক। দিনের বেলা কামড়ায় এডিস মশা। ডেঙ্গু বা চিকুনগুনিয়াও ছড়ায় এই এডিস মশা থেকে। জ়িকায় সাধারণত যে উপসর্গগুলি দেখা যায়, সেগুলি হল, জ্বর, নাক থেকে জল পড়া, মাথা ব্যাথা, গায়ে র‍্যাশ। এক সপ্তাহের বেশি এই উপসর্গগুলি থাকলে জ়িকা হওয়ার সম্ভাবনা প্রবল। আরও পড়ুন: ঝাড়খণ্ডের বৃষ্টিতে বন্যার ভ্রুকুটি বঙ্গে, ৫ জেলায় সক্রিয়তা, সতর্ক থাকতে বলল নবান্ন

Zika Band

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla