Yashwant Sinha: রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে বিরোধীদের ‘কালো ঘোড়া’ হতেই তৃণমূল ছাড়লেন যশবন্ত?

Yashwant Sinha: রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে বিরোধীদের 'কালো ঘোড়া' হতেই তৃণমূল ছাড়লেন যশবন্ত?
ছবি: ফাইল চিত্র

Presidential Election: মোদী-শাহের বিজেপির থেকে দূরত্ব বাড়ার পর ২০২১ সালে তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলেন প্রাক্তন আমলা এবং কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী যশবন্ত সিনহা।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: অরিজিৎ দে

Jun 21, 2022 | 2:10 PM

নয়া দিল্লি: আসন্ন রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে মঙ্গলবার দু’টি গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকের দিকে তাকিয়ে গোটা দেশ। একদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের প্রার্থী চূড়ান্ত করতে আলোচনা বসতে চলেছে গেরুয়া শিবির। অন্যদিকে এনসিপি নেতা শরদ পওয়ারের ডাকা বৈঠকে অংশ নেবে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলি। এর মাঝে প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী যশবন্ত সিনহার তৃণমূল ত্যাগ ঘিরে জল্পনা শুরু হয়। এর অব্যবহিত পরেই এনডিটিভি সূত্র মারফত জানতে পারে, বিরোধীর দলগুলির যৌথ রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিসেবে যশবন্ত সিনহার নাম প্রস্তাব করা হতে পারে। আর সম্ভবত সে কারণেই যশবন্তের তৃণমূলের সদস্য পদ ত্যাগের সিদ্ধান্ত।

মোদী-শাহের বিজেপির থেকে দূরত্ব বাড়ার পর ২০২১ সালে তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলেন প্রাক্তন আমলা এবং কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী যশবন্ত সিনহা। তৃণমূলে এসে তিনি সর্বভারতীয় সহ-সভাপতির পদও লাভ করেন। এরপর চলতি বছরের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের প্রাক্কালে বিরোধী শিবিরের প্রার্থী হিসাবে শরদ পাওয়ার, ফারুখ আবদুল্লা বা গোপাল কৃষ্ণ গান্ধীর নাম সামনে এলেও শেষ পর্যন্ত তা চূড়ান্ত হয়নি। এই আবহেই ভেসে আসে যশবন্ত সিনহার প্রার্থীপদের সম্ভবনার কথা। এমতাবস্থায় আজ হঠাৎ টুইট করে তৃণমূল ত্যাগের কথা ঘোষণা করেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী যশবন্ত সিনহা।

টুইটে যশবন্ত জানিয়েছেন, দেশের স্বার্থে এবং বৃহত্তর বিরোধী ঐক্য তৈরির লক্ষ্যেই তিনি এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। দল ছাড়ার কথা ঘোষণা করার পাশাপাশি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ধন্যবাদ জানাতেও ভোলেননি দেশের প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে, সামগ্রিক বিরোধী শিবিরের প্রার্থী হিসাবে রাষ্ট্রপতি পদে লড়ার জন্যই তিনি দল ছেড়েছেন। তবে এখনই এ বিষয়ে কোনও রকম মন্তব্য করতে রাদি নয় যশবন্ত সিনহা, এমনটাই জানাচ্ছে তাঁর ঘনিষ্ঠ মহল।

উল্লেখ্যে, রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে নিজেদের প্রাথীকে জয়ী করতে এনডিএ-র ১৩ হাজার ভোটের ঘাটতি রয়েছে। অতীতে ২০১৭ সালেও রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের সময়েও এনডিএ-র ঝুলিতে প্রয়োজনীয় ভোট ছিল না। সে সময় টিআরএস-এর মতো দল গেরুয়া প্রার্থী রামনাথ কোবিন্দকে সমর্থন করেছিল। তবে এবার এখনও পর্যন্ত চন্দ্রশেখর রাও-এর টিআরএস বিরোধী প্রার্থীদের পক্ষেই জোর সওয়াল করছে।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA