TMC: ভাঙা পড়ছে তৃণমূল ভবন, জিনিসপত্র সরাতে গিয়ে উদ্ধার এক লক্ষ্মী পেঁচা

বাড়িতে লক্ষ্মী পেঁচা (Barn Owl) পাওয়াকে অনেকে শুভ ইঙ্গিত বলে মনে করেন। একুশের বিধানসভা ভোটে বিরাট ব্যবধানে জয় পেয়েছে তৃণমূল (TMC)। মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে হ্যাটট্রিক করেছেন নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)।

TMC: ভাঙা পড়ছে তৃণমূল ভবন, জিনিসপত্র সরাতে গিয়ে উদ্ধার এক লক্ষ্মী পেঁচা
নিজস্ব চিত্র

কলকাতা: তিলজলার তৃণমূল ভবন (TMC Bhawan) ভাঙার কাজ শুরু হয়েছে। এখন সরানো হচ্ছে ভবনের আসবাবপত্র থেকে গুরুত্বপূর্ণ নথি। শুক্রবার একটি মুভার্স ও প্যাকার্স সংস্থার কর্মীরা সেই নথিপত্র সরাতে গিয়েই কার্যত চমকে ওঠেন। তাঁরা দেখেন আসবাবপত্রের মধ্যে গুটিসুটি মেরে বসে রয়েছে একটি লক্ষ্মী পেঁচা (barn owl)!

ছাদ লাগোয়া চিলেকোঠা থেকে উদ্ধার হওয়া লক্ষ্মী পেঁচাটিকে নিয়ে কার্যত হুলুস্থুল শুরু হয় তৃণমূলের হেড কোয়ার্টারে। সঙ্গে সঙ্গে খবর যায় বন দফতরে। বন দফতরের কর্মীরা এসে দেখেন, ডানায় গুরুতর আঘাত পেয়েছে পেঁচাটি। তাঁরা জানাচ্ছেন উদ্ধার হওয়া পেঁচাটি বার্ন আউল (Barn Owl) বলে পরিচিত প্রাণী জগতে। তৃণমূল ভবন থেকে উদ্ধার হওয়া এই লক্ষ্মী পেঁচাটিকে এখন সল্টলেকের বন দফতরের অফিসে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। সেখানেই হবে তার সেবা শ্রুশুষা।

তিলজলার এই পার্টি অফিস তৈরি হয় ২০০২ সালের ২০ মে। বাংলার রাজনীতিতে অনেক উত্থান-পতনের স্বাক্ষী এই ভবন। একুশের ভোটে তৃতীয় বারের জন্য ক্ষমতায় এসে সর্বভারতীয় স্তরে সংগঠনকে জোরদার করার ডাক দিয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তার সঙ্গে বদলে যাচ্ছে তৃণমূল ভবনের সজ্জাও। গত ৫ জুন তৃণমূল ভবনকে ঢেলে সাজানোর ওপরও জোর দেন তিনি। এখন ভবন থেকে জিনিসপত্র সরানোর কাজ চলছে জোরকদমে। আর সেই জিনিস সরাতে গিয়েই উদ্ধার হল লক্ষ্মী পেঁচা।

আরও পড়ুন: চার তলা হচ্ছে তিলজলার তৃণমূল ভবন, কী কী থাকছে নয়া হেড অফিসে? 

বাড়িতে লক্ষ্মী পেঁচা পাওয়াকে অনেকে শুভ ইঙ্গিত বলে মনে করেন। একুশের বিধানসভা ভোটে বিরাট ব্যবধানে জয় পেয়েছে তৃণমূল। মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে হ্যাটট্রিক করেছেন নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। তার পরেও কি কোনও শুভ খবর আসছে রাজ্যের শাসক দলে?

আরও পড়ুন: Fake Vaccination: দেবাঞ্জনের জালিয়াতি ছড়িয়েছে জেলাতেও, অভিযোগ দায়ের লাভলি মৈত্রের