Oatmeal Face Masks: ওটমিল খাওয়া যে স্বাস্থ্যের পক্ষে দারুণ উপকারি তা তো জানেন, এর থেকে এবার ফেস মাস্ক বানিয়ে ফেলুন…

Oatmeal Face Masks: ওটমিল খাওয়া যে স্বাস্থ্যের পক্ষে দারুণ উপকারি তা তো জানেন, এর থেকে এবার ফেস মাস্ক বানিয়ে ফেলুন...

আপনি ওটস থেকে অনেক ধরনের ফেসপ্যাক তৈরি করতে পারেন। ওটসে লেবুর রস, গোলাপ জল এবং শসা ইত্যাদি ব্যবহার করে ফেসপ্যাক তৈরি করতে পারেন।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: শোভন রায়

Jan 26, 2022 | 7:57 AM

স্বাস্থ্যকর খাবার হিসেবে ওটমিল (Oatmeal) একটি জনপ্রিয় পছন্দ। ওটস বিভিন্ন ভিটামিন (Vitamins), মিনারেল (Minerals), লিপিড (Lipids) এবং অ্যান্টি-অক্সিডেন্টে (Anti Oxidants) ঠাসা। ওটস আমাদের স্বাস্থ্য এবং ত্বক উভয়ের জন্যই উপকারী। এই ওটস আমাদের ত্বকের জন্য একটি দুর্দান্ত প্রাকৃতিক ক্লিনজার (Natural Cleanser) হিসাবেও কাজ করে। এতে রয়েছে স্যাপোনিন, যা ত্বককে এক্সফোলিয়েট (Exfoliation) করতে, ময়লা এবং মৃত কোষ দূর করতে সাহায্য করে। এটি ব্রণ প্রতিরোধে সাহায্য করে। আপনি এটি থেকে অনেক ধরনের ফেসপ্যাক তৈরি করতে পারেন। ওটসে লেবুর রস, গোলাপ জল এবং শসা ইত্যাদি ব্যবহার করে ফেসপ্যাক তৈরি করতে পারেন।

চালের আটা এবং ওটস ফেসপ্যাক:

ওটস পিষে ওটস পাউডার তৈরি করুন। একটি পাত্রে সমপরিমাণ ওটমিলের গুঁড়ো এবং চালের আটা নিন। এতে কিছু কাঁচা দুধ যোগ করুন। উভয় উপাদান একসঙ্গে মিশিয়ে ফেসপ্যাক তৈরি করুন। এটির একটি সমান স্তর মুখে এবং ঘাড়ে লাগান। তারপর এটাকে আপনি ২০ থেকে ৩০ মিনিটের জন্য রেখে দিন। এরপর ফ্রেশ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার ব্যবহার করতে পারেন।

Oatmeal Face Pack

অ্যালোভেরা এবং ওটস ফেসপ্যাক:

ওটমিল পাউডার তৈরি করতে, কিছু কাঁচা ওটস পিষে নিন। একটি পাত্রে এক টেবিল চামচ ওটস পাউডার নিন এবং এতে কিছু তাজা অ্যালোভেরা জেল যোগ করুন। এটি একসঙ্গে মিশিয়ে ফেলুন। তাহলেই আপনার অ্যালোভেরা ফেস প্যাক ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত। এটি সারা মুখে লাগান এবং ১৫ থেকে ২০ মিনিটের জন্য রেখে দিন। এর পর বিশুদ্ধ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার ব্যবহার করতে পারেন।

শসা এবং ওটস ফেসপ্যাক:

ওটমিলের এই ফেসপ্যাকটি তৈরি করতে দুই টেবিল চামচ ওটস নিয়ে গরম জলে ভাল করে মিশিয়ে নিন। আঁচ থেকে সরান এবং একপাশে রাখুন। একটি ছোট শসা গ্রেট করুন এবং মিশিয়ে রাখা ওটগুলিতে গ্রেটেড শসা যোগ করুন। এটি একসঙ্গে মেশান এবং এই ওটমিলের ফেসপ্যাকটি সারা মুখে এবং ঘাড়ে লাগান। আপনার আঙ্গুল দিয়ে আলতোভাবে ম্যাসাজ করুন এবং প্রায় ১৫ থেকে ২০ মিনিটের জন্য ত্বকে রেখে দিন। এর পর বিশুদ্ধ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার ব্যবহার করতে পারেন।

Disclaimer: এই প্রতিবেদনটি শুধুমাত্র তথ্যের জন্য, কোনও ওষুধ বা চিকিৎসা সংক্রান্ত নয়। বিস্তারিত তথ্যের জন্য আপনার চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করুন। 

আরও পড়ুন: Skin Care Tips: শেভিং করতে গিয়ে গভীরভাবে কেটে গিয়েছে! ত্বকের যত্নের জন্য রয়েছে সহজ ও গুরুত্বপূর্ণ টিপস

আরও পড়ুন: Hair Care: চুলের যত্ন নেওয়ার ক্ষেত্রে এই একটি তেল দারুণ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে, সবিস্তারে জেনে নিন…

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA