TOKYO OLYMPICS 2020: গেমস ভিলেজে ভারতীয় অ্যাথলিটদের জন্য নেই কড়াকড়ি

কোভিড বিধি মাথায় রেখে টোকিও পৌঁছানোর পর বাধ্যতামূলক কোয়ারান্টিনে থাকতে হচ্ছে অ্যাথলিট ও সাপোর্ট স্টাফদের।

TOKYO OLYMPICS 2020: গেমস ভিলেজে ভারতীয় অ্যাথলিটদের জন্য নেই কড়াকড়ি
TOKYO OLYMPICS 2020: গেমস ভিলেজে ভারতীয় অ্যাথলিটদের জন্য নেই কড়াকড়ি (সৌজন্যে-টুইটার)

টোকিও: জাপানে (Japan) ক্রমশ থাবা বসাচ্ছে করোনাভাইরাস (COVID-19)। উদ্বেগের মাঝেই ৫ দিন পর শুরু টোকিও অলিম্পিক (Tokyo Olympics)। গেমসে অংশ নিতে টোকিও পৌঁছে গিয়েছে ভারতের ৮৮ সদস্য। তার মধ্যে রয়েছেন ৫৪ অ্যাথলিট। ধাপে ধাপে বাকি অ্যাথলিট ও সাপোর্ট স্টাফরাও পৌঁছাবেন জাপানে। টোকিও পৌঁছানোর পর প্রথমদিন থেকেই গেমস ভিলেজের সরঞ্জাম ব্যবহার করতে পারবেন ভারতীয় অ্যাথলিটরা (Indian athletes)।

কোভিড বিধি মাথায় রেখে টোকিও পৌঁছানোর পর বাধ্যতামূলক কোয়ারান্টিনে থাকতে হচ্ছে অ্যাথলিট ও সাপোর্ট স্টাফদের। নির্দিষ্ট অ্যাথলিটের প্রতিযোগিতা শুরুর ৫ দিন আগে গেমস ভিলেজে ঢুকতে পারবেন তারা। তবে ভারতীয় অ্যাথলিটদের জন্য ছাড় দিয়েছে আয়োজক কমিটি। টোকিও অলিম্পিকে ভারতের ডেপুটি শেফ দ্য মিশন ডক্টর প্রেম বর্মা জানান, ভারতীয় অ্যাথলিটদের ৩ দিনের বাধ্যতামূলক আইসোলেশনে থাকতে হবে না। টোকিও পৌঁছেই গেমস ভিলেজের জিম, ডাইনিং এরিয়া ব্যবহার করতে পারবেন ভারতীয়রা। টোকিও পৌঁছানোর আগে বেশ কয়েকবার করোনা পরীক্ষা করা হয় ভারতীয়দের। অ্যাথলিট ও সাপোর্ট স্টাফদের স্বাস্থ্য নিয়ে বরাবরই সচেতন থেকে দেশের স্বাস্থ্য দফতর।

আরও পড়ুন: Tokyo Olympics 2020: নিরাপদে টোকিও পৌঁছলেন সিন্ধু-দীপিকারা

অলিম্পিকে ভারতের শেফ দ্য মিশন ও অন্যান্য আধিকারিকরা ১৪ জুলাই টোকিওয় পা রেখেছেন। ৩ দিনের বাধ্যতামূলক আইসোলেশনে থাকতে হয়নি তাঁদের। গেমস ভিলেজ সংলগ্ন টাওয়ারের বিভিন্ন জায়গাতেই ঘুরে বেড়াতে পারছেন ভারতীয়রা। ভিলেজ সংলগ্ন ১৫ তলা টাওয়ারের ১১, ১২ ও ১৩ তলায় ভারতীয়দের জন্য ১৮২টি ঘর বরাদ্দ করা রয়েছে। ওই টাওয়ারেই ভারতীয়দের সঙ্গে থাকছে দক্ষিণ আফ্রিকা, নরওয়ে, বেলজিয়াম ও ডেনমার্কের অ্যাথলিট ও অফিসিয়ালরা। অন্যান্য দেশের অ্যাথলিট ও সাপোর্ট স্টাফদের জন্য কড়াকড়ি থাকলেও ভারতীয়দের জন্য সে সবে ছাড় দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: TOKYO OLYMPICS 2020: গেমস ভিলেজেও করোনার হানা, একদিনে সংক্রমিত ১০

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla