Suicide: তাঁর চেয়ে ঢের ‘ভাল ছেলে’ পেয়েছেন প্রেমিকা, অভিমানে আত্মঘাতী যুবক!

Crime News: পুজোর কয়েকদিন মামুন নিরাপত্তারক্ষীর কাজ করেছিলেন। কিন্তু প্রেমিকার সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক তলানিতে ঠেকেছিল। এ নিয়ে মানসিক অশান্তিতে ভুগছিলেন যুবক বলে পরিবার সূত্রে খবর। আর তার পরেই এই মর্মান্তিক পরিণতি।

Suicide: তাঁর চেয়ে ঢের 'ভাল ছেলে' পেয়েছেন প্রেমিকা, অভিমানে আত্মঘাতী যুবক!
পরিবারের ছেলেকে হারিয়ে মর্মাহত পরিবার। (নিজস্ব চিত্র)

গঙ্গারামপুর: প্রেমিকার নাকি তাঁর চেয়ে ‘ভালো ছেলের’ সঙ্গে বিয়ে ঠিক হয়েছে। প্রেমিকা অন্যের হয়ে যাবে! তাঁর বিয়ে ঠিক হয়েছে? কোনওভাবেই এই বিষয়টি নাকি মেনে নিতে পারছিলেন না প্রেমিক। তাই প্রেমিকার সঙ্গে কথা বলতে বলতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী (Suicide) হলেন তিনি। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য ছড়াল দক্ষিণ দিনাজপুরের গঙ্গারামপুরে (Gangarampur)। মৃতের নাম মামুন চৌধুরী (২৩)।

জানা গিয়েছে, বছর তেইশের মামুন চৌধুরীর বাড়ি দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার গঙ্গারামপুর থানার নন্দনপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের নাগন এলাকায়। মৃত ওই যুবক পেশায় বেসরকারি নার্সিংহোমের অস্থায়ী কর্মী ছিলেন। পুজোর কয়েকদিন মামুন নিরাপত্তারক্ষীর কাজ করেছিলেন। কিন্তু প্রেমিকার সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক তলানিতে ঠেকেছিল। এ নিয়ে মানসিক অশান্তিতে ভুগছিলেন বলে পরিবার সূত্রে খবর। আর তার পরেই এই মর্মান্তিক পরিণতি। প্রেমিকার সঙ্গে ফোনে কথা বলতে বলতেই বাড়িতে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হলেন ওই যুবক।

রবিবার সকালে যুবকের দেহ উদ্ধার করে তা ময়নাতদন্তের জন্য বালুরঘাট জেলা হাসপাতালে পাঠায় গঙ্গারামপুর থানার পুলিশ। এদিকে এনিয়ে গঙ্গারামপুর থানায় মৃতের পরিবারের তরফ থেকে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। তাতে আঙুল উঠেছে ওই তরুণীর দিকে। পুরো ঘটনা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

মামুনের পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, মামুনের সঙ্গে বংশীহারী এলাকার এক যুবতীর দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। কলেজ জীবন থেকেই তাঁদের সম্পর্ক। এবং সেটা পরিবারের সবাই জানতেনও। কিন্তু সম্প্রতি তাঁদের সম্পর্কে চিড় ধরে। এর পর গত কিছু দিন আগেই মামুনের প্রেমিকার অন্যত্র বিয়ে ঠিক হয় বলে খবর। আর এনিয়েই মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন তিনি।

এর পর রবিবার রাতে একাধিকবার প্রেমিকাকে ফোন করে পুরো বিষয়টি বোঝানোর চেষ্টা করেন তিনি। সম্পর্কে ফিরে আসতে অনুরোধ করেন। তবে কোনও লাভ হয়নি। অভিমানে প্রেমিকার সঙ্গে ফোনে কথা বলতে বলতেই গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হন যুবক। এদিকে এনিয়ে মামুনের পরিবার আঙুল তুলেছে তরুণীর দিকে। তাঁদের ছেলের মর্মান্তিক পরিণতির নেপথ্যে যিনি  রয়েছেন তাঁর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন তাঁরা। যদিও অভিযুক্তা বা তাঁর পরিবারের তরফে এ নিয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, শনিবার প্রায় একইরকম একটি ঘটনা ঘটেছে দক্ষিণ দিনাজপুরের বালুরঘাটে।  প্রেমিকার ছবি হাতে নিয়েই আত্মঘাতী হন প্রেমিক। এমনকি প্রেমিকার বাড়ির পাশেই ঝুলন্ত অবস্থায় তাঁর  মৃতদেহ উদ্ধার করে স্থানীয়রা। বিজয়া দশমীর পরের দিন এই ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়ায় দক্ষিণ দিনজপুর জেলার বালুরঘাটে।  এনিয়ে বালুরঘাট (Balurghat) থানায় এক তরুণী-সহ বেশ কয়েক জনের নামে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে মৃতের পরিবার।

আরও পড়ুন: Udayan Guha: ৫৭-র বদলা নিতে মরিয়া উদয়ন, ভোটের আগে ভাঙন ধরালেন বিজেপিতে

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla