Mamata Banerjee in Siliguri: সরকারের স্টিকার লাগানো মানেই সরকারি গাড়ি নয়, দলের কেউ হলেও অ্যাকশন নিন: মমতা

CM Mamata Banerjee: মমতা বলেন, "বালি উত্তোলন বন্ধ করতে নজর দিন। যেই হোক, বিএলআরও যুক্ত থাকলে ব্যবস্থা নিন। পুলিশের ভিজিলেন্স সেলও নজর রাখছে পুলিশের কাজে। আমার দলের কেউ থাকলে অ্যাকশন নিন।''

Mamata Banerjee in Siliguri: সরকারের স্টিকার লাগানো মানেই সরকারি গাড়ি নয়, দলের কেউ হলেও অ্যাকশন নিন: মমতা
মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি বিধায়কের

শিলিগুড়ি: কেন্দ্রের সরকারি স্টিকার লাগানো গাড়িতে করে টাকা আসছে রাজ্যে। সেই টাকা দিয়ে ভোট কেনার ছক কষেছে বিজেপি (BJP)। সীমান্তে নাকা চেকিং শুরু করুন। সিল করে দিন সীমানা। ভোটের সময় এক জনসভা থেকে এমনই বিস্ফোরক অভিযোগ করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। এদিকে রাজ্যে একের পর এক ভুয়ো অফিসার ধরা পড়ছে। সেদিকে ইঙ্গিত করে এদিন পুলিশ প্রশাসনকে ফের সজাগ হওয়ার নির্দেশ দিলেন রাজ্যের পুলিশমন্ত্রী। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কথায়, সরকারি স্টিকার লাগানো মানেই সেই গাড়ি সরকারি হবে এমনটা না-ও হতে পারে।

সোমবার প্রশাসনিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী পুলিশকে উদ্দেশ্য় করে বলেন, “নাকা চেকিংয়ে দেখুন অ্যাম্বুল্যান্স, প্রেস লিখে কারা আসছে। নাকা চেকিং করুন ভীন রাজ্য থেকে কারা আসছে। সরকারের স্টিকার লাগানো গাড়ি মানেই সরকারি গাড়ি নয়। সেসব গাড়িতে কারা আসছেন খেয়াল রাখুন।”

এর পর মুখ্যমন্ত্রী আসেন স্বাস্থ্যসাথী কার্ড প্রসঙ্গে। বলেন, বহু বেসরকারি হাসপাতাল স্বাস্থ্যসাথী মানছে না। অ্যাকশন নিন। চিহ্নিত করুন। দরকারে আমি ওদের লাইসেন্স বাতিল করব। উল্লেখ্য, এর আগেও স্বাস্থ্যসাথী কার্ড ফিরিয়ে দেওয়া ছোটবড় বেসরকারি হাসপাতালগুলিকে হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেনন মমতা। এদিন ফের সেদিকে ইঙ্গিত করলেন। পাশাপাশি অবৈধ বালি খাদান নিয়েও পুলিশকে কড়া হতে বলেন মুখ্যমন্ত্রী।

মমতা বলেন, “বালি উত্তোলন বন্ধ করতে নজর দিন। যেই হোক, বিএলআরও যুক্ত থাকলে ব্যবস্থা নিন। পুলিশের ভিজিলেন্স সেলও নজর রাখছে পুলিশের কাজে। আমার দলের কেউ থাকলে অ্যাকশন নিন।” সরকার নদী থেকে বেআইনি ভাবে বালি তোলার ক্ষেত্রে টাকা চায় না, মন্তব্য মুখ্যমন্ত্রীর।

স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতে এদিন বিজেপিকে কটাক্ষ করে মুখ্যমন্ত্রী টানেন বাংলাদেশ প্রসঙ্গ। বলেন, ‘গন্ডগোল কুমিল্লায়, লিখল বাংলায়! এখানে কেউ যেন বিভাজনের রাজনীতি না করতে পারে। নজর রাখুন।’ ডিজিকে নির্দেশ দেন, কেউ যেন দাঙ্গা না লাগায় সে ব্যাপারে সাবধান হতে হবে। বলেন, “যারা উসকানি দেয় তারা কমিউনাল নয়, ক্রিমিনাল। গন্ডগোল কুমিল্লায়, লিখল বাংলায়। পিকিউলিয়ার পার্টি!”

প্রসঙ্গত, নির্বাচনের পর প্রথমবার উত্তরবঙ্গে পা রেখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রবিবার শিলিগুড়ির বাঘাযতীন পার্ক থেকে  সেরেছেন বিজয়া সম্মিলনীর অনুষ্ঠান। সেই অনুষ্ঠানেই নাম না করে পরোক্ষে বিজেপিকেই তোপ দাগেন তৃণমূল সুপ্রিমো। সম্প্রতি, সীমানায় ক্ষমতা বৃদ্ধি করা হয়েছে সীমান্ত রক্ষী বাহিনী তথা বিএসএফের (BSF)। সেই ক্ষমতায়নকে ‘পলিটিক্যাল ষড়যন্ত্র’ বলে দাবি তৃণমূল নেত্রীর। এদিনও ফের এ নিয়ে সরব হন।

আরও পড়ুন: Suvendu Adhikari: ‘এখনও সময় আছে…’ মুখ্যমন্ত্রীর স্কুল খোলার সিদ্ধান্তে কী বললেন শুভেন্দু অধিকারী?

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla