Howrah Gun Fire: মাংস কিনতে বেরিয়েছিলেন, পাড়া গলি থেকে রাস্তায় উঠতেই ঝাঁঝরা হয়ে গেল গোটা শরীর

Howrah Gun Fire: মাংস কিনতে বেরিয়েছিলেন, পাড়া গলি থেকে রাস্তায় উঠতেই ঝাঁঝরা হয়ে গেল গোটা শরীর
হাওড়ায় গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু

Howrah Gun Fire: বাকি তিনটি গুলি তাপসের শরীর ফুঁড়ে বেরিয়ে যায়। এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। ডোমজুড় থানার পুলিশ এলাকায় তল্লাশি চালাচ্ছে। নমুনা সংগ্রহ করছে পুলিশ।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: শর্মিষ্ঠা চক্রবর্তী

May 15, 2022 | 3:00 PM

হাওড়া: এবার হাওড়ার ডোমজুড়ে প্রকাশ্যে চলল গুলি। মাকড়দহে এক ব্যক্তিকে গুলি করে খুনের অভিযোগ। মৃতের নাম তাপস গোলুই (৪৫)। স্থানীয় সূত্রে খবর, বাজার যাওয়ার পথে ঘিরে ধরে পাঁচ রাউন্ড গুলি চলে। মৃত তাপসের বিরুদ্ধে দুষ্কৃতীমূলক কাজকর্মের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগ রয়েছে। পুরনো শত্রুতার জেরেই এই খুন বলে প্রাথমিকভাবে মনে করছে পুলিশ। ঘটনায় জড়িতদের খোঁজ চালাচ্ছে পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, তাপস রবিবার সকালে বাজারে যাচ্ছিলেন। ব্যস্ত সময়ে এলাকা জনবহুল ছিল। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানাচ্ছেন, স্কুটিতে ছিলেন তাপস। পাড়ার সরু গলি দিয়ে রাস্তাতে উঠতেই তাঁকে লক্ষ্য করে বেশ কয়েক রাউন্ড গুলি চলে। প্রথম গুলিটা লাগে তাপসের পীঠে। পরের গুলিটি লাগে তাপসের মাথায়।  বাকি তিনটি গুলি তাপসের শরীর ফুঁড়ে বেরিয়ে যায়। রক্তাক্ত অবস্থায় স্কুটি থেকে লুটিয়ে পড়েন তাপস। তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার আগেই মৃত্যু হয়।

হাওড়ায় গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু

এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। ডোমজুড় থানার পুলিশ এলাকায় তল্লাশি চালাচ্ছে। নমুনা সংগ্রহ করছে পুলিশ। প্রাথমিক তদন্তের ভিত্তিতে পুলিশ জানতে পারছে, তাপসের বিরুদ্ধে আগেও একাধিক অভিযোগ রয়েছে। সেক্ষেত্রে পুরনো বিপক্ষ গোষ্ঠীরই রোষের শিকার হয়ে থাকতে পারেন তিনি, তেমনটাই মনে করছেন তদন্তকারীরা। তাপসের পরিবারের সঙ্গে কথা বলা হচ্ছে। কথা বলা হচ্ছে প্রত্যক্ষদর্শীদের সঙ্গেও।

সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে চার জন সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে আটক করেছে ডোমজুড় থানা পুলিশ। গত বছর ছয়েক আগে তাপস দোলুইয়ের উপর হামলা চালিয়েছিল দুষ্কৃতীরা। সেই সময় তাঁর বাড়িতে চড়াও হয়ে দুষ্কৃতীরা খুব কাছ থেকে গুলি করলেও বরাত জোরে বেঁচে গিয়েছিলেন তাপস। কিন্তু এদিনের এই ঘটনায় আর রক্ষা পেলেন না।

জমি সংক্রান্ত পুরনো কোন বিবাদের জেরে এই ঘটনা নাকি এর পেছনে রয়েছে কোন রাজনৈতিক অভিসন্ধি, তা পুরো খতিয়ে দেখছে হাওড়া সিটি পুলিশ। এদিনের ঘটনা প্রসঙ্গে নিহতের স্ত্রী বলেন, “আমাকে সকালে বলল চা করো, চা খেয়ে বেরোব। আর বলল আজ একটা দরকারি কাজ রয়েছে, অশান্তি করো না। জমির মাপ করবে বলেছিল। তারপর পাড়ার লোকই তো বলল এসব হয়েছে।”

এই খবরটিও পড়ুন

প্রসঙ্গত, কলকাতার বাঁশদ্রোনী এলাকায় গুলিবিদ্ধ হন এক ব্যক্তি। স্থানীয় মানুষজনের দাবি, সিন্ডিকেট নিয়ে ঝামেলার জেরেই এই গুলি চলার ঘটনা ঘটেছে। হাওড়া ডিসি সাউথ প্রতীক্ষা ঝাকারিয়া জানিয়েছেন, আমরা কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করছি, এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে। তদন্ত চলছে।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA