Drinking Water Without Brushing: ঘুম থেকে উঠে ব্রাশ না করে জল পান করা কি শরীরে পক্ষে ভাল?

আপনি যদি জাপানি সংস্কৃতির সঙ্গে পরিচিত হন, তাহলে হয়তো জানবেন যে জাপানিরা ঘুম থেকে ওঠার পরই দুই গ্লাস জল পান করে। এমনকি ডাক্তাররা সর্বদা খালি পেটে দুটি পূর্ণ গ্লাস বা কমপক্ষে একটি পান করার পরামর্শ দেন। তাহলে আসুন জানা যাক, ব্রাশ করার আগে জল খাওয়া কতটা ঠিক এবং এটি শরীরে কীভাবে প্রভাব ফেলে।

Drinking Water Without Brushing: ঘুম থেকে উঠে ব্রাশ না করে জল পান করা কি শরীরে পক্ষে ভাল?
প্রতীকী ছবি

আমাদের মানবদেহ ৮০ শতাংশ জল দিয়েই তৈরি। জল আমাদের শরীরের জন্য কতটা অপরিহার্য তা হয়তো সকলেই জানেন। কিন্তু অনেকেরই প্রায়শই প্রশ্ন থাকে যে দাঁত ব্রাশ করার আগে জল পান করা কি ঠিক? এটা কি শরীরের কোনও ক্ষতি করবে?

আপনি যদি জাপানি সংস্কৃতির সঙ্গে পরিচিত হন, তাহলে হয়তো জানবেন যে জাপানিরা ঘুম থেকে ওঠার পরই দুই গ্লাস জল পান করে। এমনকি ডাক্তাররা সর্বদা খালি পেটে দুটি পূর্ণ গ্লাস বা কমপক্ষে একটি পান করার পরামর্শ দেন। তাহলে আসুন জানা যাক, ব্রাশ করার আগে জল খাওয়া কতটা ঠিক এবং এটি শরীরে কীভাবে প্রভাব ফেলে।

অনেকে বিশ্বাস করেন যে আপনার ঘুম থেকে ওঠার পরে লালায় উপস্থিত ব্যাকটেরিয়ার কারণে দাঁত ব্রাশ করার আগে জল পান করা উচিত নয়। তবে এটি শুধুমাত্র মানুষের ধারণা, এর কোনও বৈজ্ঞানিক যুক্তি নেই। ঘুম থেকে ওঠে ব্রাশ করার আগে যদি আপনি জল পান করেন, আপনার লালা জলের সাথে পেটে চলে যায়। এর ভিতরে থাকা উচ্চ অ্যাসিডের উপাদানের কারণে ব্যাকটেরিয়া মারা যায়। অতএব দাঁত ব্রাশ করার আগে জল পান করলে একেবারেই কোনও ক্ষতি হয় না।

drinking water without brushing

প্রতীকী ছবি

প্রতিদিন সকালে জল পান করালে এটি আপনার শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে আরও শক্তিশালী করে তোলে। এটি আপনাকে রোগ এবং জীবাণুর বিরুদ্ধে আরও ভালভাবে লড়াই করতে সহায়তা করে। সকালে ঘুম থেকে উঠে জল পান করলে আপনার বিপাকক্রিয়া বৃদ্ধি পায়, যার ফলে খাবার দ্রুত হজম হয়ে যায়। তাছাড়া এটি আপনাকে সারা দিন হাইড্রেটেড রাখতেও সাহায্য করে। এটি মাথার যন্ত্রণা এবং মাইগ্রেনের মত সমস্যার হাত থেকেও রক্ষা করে।

ব্রাশ করার আগে খালি পেটে জল খেলে জল খেলে এটি অন্ত্রে চাপ সৃষ্টি করে। যার ফলে ফলে সহজেই মল শরীর থেকে নির্গত হয়ে যায়। বিশেষত এর ফলে আপনাকে কোনও কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যার মুখোমুখি হতে হয় না। আপনার অন্ত্র সহজেই পরিষ্কার হয়ে যায়, যার ফলে এটি কোলন সংক্রমণ প্রতিরোধেও সহায়তা করে।

ওজন কমানোর ক্ষেত্রেও সহায়ক খালি পেটে জল খাওয়া। খালি পেটে জল খেলে এটি আপনার খিদেকে প্রতিরোধ করে, যার ফলে আপনি বার বার খাওয়া থেকে বঞ্চিত থাকেন। এমনকি দুটি খাওয়া সময়ের ব্যবধানে জল পান করলেও কমতে পারে আপনার ওজন। আপনার ত্বকের উজ্জ্বলতা বজায় রাখতেও সাহায্য করে এটি। এটি বিষাক্ত পদার্থ এবং মৃত কোষগুলিকে শরীর থেকে বের করে দেয়, যার ফলে শরীরের নতুন এবং তাজা কোষ বৃদ্ধিতে সহায়তা হয়। সুতরাং বুঝতেই পারছেন যে, ব্রাশ না করে দু গ্লাস জল পান করলেই আপনার শরীর কতটা সুস্থ থাকবে!

আরও পড়ুন: জানেন পর্যাপ্ত পরিমাণ জল পান না করলে শরীরে দেখা দিতে পারে কী কী সমস্যা?

Read Full Article

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla