ভিডিয়ো: বন্যায় বাড়ির ছাদে বন্দি বাসিন্দারা, উদ্ধার করতে গিয়ে আটকে গেলেন মন্ত্রীই, তারপর…

দাতিয়া জেলায় গিয়ে ওই অঞ্চলেরই বিধায়ক নরোত্তম মিশ্র দেখেন, একটি বাড়ি সম্পূর্ণ ডুবে গিয়েছে, কেবল ছাদটুকু বাকি রয়েছে। সেখানেই আটকে রয়েছেন নয়জন।

ভিডিয়ো: বন্যায় বাড়ির ছাদে বন্দি বাসিন্দারা, উদ্ধার করতে গিয়ে আটকে গেলেন মন্ত্রীই, তারপর...
বায়ুসেনার হেলিকপ্টারে উদ্ধার করা হচ্ছে মন্ত্রীকে।

ভোপাল: গিয়েছিলেন বন্যাদুর্গত মানুষদের খোঁজ নিতে গিয়েছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী, কিন্তু নিজেই আটকে পড়লেন বন্যার জলে। পরে বাধ্য হয়ে আকাশপথে উদ্ধার করতে হল ওই মন্ত্রীকে।

একটানা বৃষ্টিতে বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে মধ্য প্রদেশের একাধিক অংশে। মঙ্গলবারই দুটি ব্রিজ ভেঙে পড়ে জলের তোড়ে। বন্যাদুর্গত অঞ্চলগুলিতে বসবাসকারীদের পরিস্থিতি কী, তা জানতেই বুধবার পরিদর্শনে বেরিয়েছিলেন রাজ্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নরোত্তম মিশ্র। দাতিয়া জেলায় গিয়ে ওই অঞ্চলেরই বিধায়ক নরোত্তম মিশ্র দেখেন, একটি বাড়ি সম্পূর্ণ ডুবে গিয়েছে, কেবল ছাদটুকু বাকি রয়েছে। সেখানেই আটকে রয়েছেন নয়জন।

তাদের দেখতে পেয়েই রাজ্য বিপর্যয় মোকাবিলা দফতরের বোট নিয়ে সেখানে কোনও মতে পৌঁছনো হয়। আটকে পড়া বাসিন্দাদের উদ্ধারকার্য শুরু হওয়ার আগেই আচমকা একটি গাছ ভেঙে পড়ে উদ্ধারকারী বোটের উপর। ডাল-পালার আঘাতে বোটের ইঞ্জিনও স্টার্ট হওয়া বন্ধ হয়ে যায়। উদ্ধার করতে এসে আটকে পড়েন মন্ত্রীও।

এরপরই তিনি সরকারি আধিকারিকদের খবর দেন এবং কিছুক্ষণ বাদে ভারতীয় বায়ুসেনার হেলিকপ্টার গিয়ে আটকে পড়া সকলকে উদ্ধার করে। তবে বিপদের মুহূর্তেও দায়িত্ব ভোললেননি মন্ত্রী। প্রথমে নিজে নয়, বরং আটকে থাকা নয়জনকেই উদ্ধারে সাহায্য করেন তিনি। এরপর নিজেও ঝুলন্ত দড়ি বেয়ে হেলিকপ্টারে ওঠেন।

যদিও মন্ত্রীর এই সাহসিকতার সমালোচনাই করেছে কংগ্রেস। ভূপিন্দর গুপ্তা বলেন, “যেভাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী স্পাইডারম্যানের মতো আচরণ করছিলেন, তা নিজের জন্যও যেমন ভয়ঙ্কর, তেমনই আটকে পড়া ব্যক্তি ও মন্ত্রীর সঙ্গে যারা গিয়েছিলেন, তাদের জন্যও বিপদজনক। এটা কেবল প্রচার পাওয়া চেষ্টা ছিল।”   আরও পড়ুন: ‘সুপার স্প্রেডারে পরিণত হতে পারে উৎসবের মরশুম’, দুর্গাপুজোতেও বিধিনিষেধে জোর কেন্দ্রের

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla