Fashion Polluting Environment: নিত্য নতুন ডিজাইনার কালেকশন সংগ্রহে আনতে ছুটে চলেছি সবাই, জেনে নিন কীভাবে এই অভ্যেস পরিবেশের ক্ষতি করছে…

অতিরিক্ত জামা কাপড় ফেলে না দিয়ে দান করা যেতে পারে। এতে কাপড় রিসাইক্লিং হবে এবং কিছুটা লাভ হবে। শুধু দরিদ্র নয় আপনি নিজেও রিসাইক্লিং করা কাপড় কিনতে পারেন।

Fashion Polluting Environment: নিত্য নতুন ডিজাইনার কালেকশন সংগ্রহে আনতে ছুটে চলেছি সবাই, জেনে নিন কীভাবে এই অভ্যেস পরিবেশের ক্ষতি করছে...

বিশ্বে শীত, গ্রীষ্ম, শরৎ সব ঋতুর জন্যই আলাদা আলাদা নতুন সব ডিজাইনের পোশাক তৈরি হয়। গত মাসে যে পোশাকটি হাঁটু পর্যন্ত চল ছিল, ঠিক তার কয়েক মাস পরেই পায়ের গোড়ালি ছুঁল একটা অন্য ডিজাইন। প্রতি মরসুমে আপনিও ছুটছেন জমকালো শপিং মলে সেই সব পোশাক কেনার জন্য। হঠাৎ বাজারে নির্দিষ্ট কোন রঙের পোশাকের বিক্রি ধরুন বন্ধ হয়ে গেল। যেমন বাংলাদেশে উৎসবের মরসুমে নির্দিষ্ট কিছু রঙের পোশাক কিনতে মানুষজন বাজারে ছুটতে থাকেন। কিন্তু বাকি সারা বছর পোশাকটি পড়ে থাকে। কী হবে সেই অতিরিক্ত পোশাকের?

ডিজাইনার এবং পোশাক বিক্রেতারা নতুন ডিজাইন লঞ্চ করার জন্য সবসময় একে অপরের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় নামেন। সেই প্রতিযোগিতায় অংশ নিচ্ছি আমরা সবাই। নিত্য নতুন পোশাক পরে বাহবা পেতে চাই আমরা অনেকে। কিন্তু এর একটা চরম খেসারত দিতে হচ্ছে পরিবেশকে। ফ্যাশন কীভাবে পরিবেশের ক্ষতি করে? ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রি প্রচুর পরিমাণে গ্রিন হাউস গ্যাস উৎপন্ন করে। ব্রিটেনে পোশাক বিক্রেতা এবং হাল ফ্যাশন নিয়ে মাতামাতি করেন এমন ব্যক্তিরা পরিবেশের ক্ষতিতে তাদের ভূমিকার জন্য সমালোচিত হচ্ছেন। 

fashion is destroying environment

বাতিল কাপড় গিয়ে জমছে ময়লার ভাগাড়ে। ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে ব্রিটেনেই সবথেকে বেশি নতুন কাপড় কেনার প্রবণতা দেখায়। গত এক দশক আগে মানুষজন সেখানে যে পরিমাণ কাপড় কিনতো এখন তার দ্বিগুণ কিনছে। ব্রিটেনে গত বছর প্রায় ২৫ কোটি জামা কাপড় ময়লার ভাগাড়ে পাঠানো হয়েছে। এক বছরের মধ্যে সেখানে প্রতি পাঁচটি কাপড়ের তিনটি বাতিল হচ্ছে এবং ল্যান্ডফিল থেকে সেগুলো সংগ্রহ করে পুড়িয়ে ফেলা হচ্ছে। তাতে খরচ হচ্ছে জ্বালানি। ব্রিটেনে ২০১৫ সালে ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রির কারণে একশো কুড়ি কোটি টন কার্বন উৎপন্ন হয়েছে। 

এর সমাধান কী? 

কাপড় ফেলে দেয়ার উপর নিষেধাজ্ঞা আনার পরামর্শ দিয়েছে ব্রিটেনের পরিবেশ বিষয়ক কমিটি। তারা বলছে পরিবেশের উপর যে প্রভাব পড়ছে ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিকে সরাসরি তার দায়ভার নিতে হবে। দূষণ রোধে তাদের সরাসরি কাজ করতে হবে। ব্রিটেনে যেসব পোশাক বিক্রি হয় না সেগুলো পুড়িয়ে ফেলছেন অনেক বিক্রেতা। সেটা বন্ধ করার কথা বলছে কমিটি। এই বিষয়ে আমাদেরও একটা দায় আছে। যেমন অতিরিক্ত জামা কাপড় ফেলে না দিয়ে দান করা যেতে পারে। এতে কাপড় রিসাইক্লিং হবে এবং কিছুটা লাভ হবে। শুধু দরিদ্র নয় আপনি নিজেও রিসাইক্লিং করা কাপড় কিনতে পারেন। বেশিদিন টেকে এমন কাপড় তৈরি করা যেতে পারে। ইচ্ছেমত কাপড় বাতিল করার বদলে বেশিদিন পরতে পারেন।

আরও পড়ুন: Bipasha Basu: মলদ্বীপে ‘নিওন’ বোল্ড লুকে গ্ল্যামার ছড়াচ্ছেন বিপাশা! দেখুন সেই আগুন ঝরানো ছবি…

আরও পড়ুন: Mimi Chakraborty: সিল্কের শাড়ি-সোনার গয়না আর ছোট্ট টিপ, উত্‍সবেও বাঙালি লুক ধরে রাখলেন বাঙালি সাংসদ

আরও পড়ুন: Eternals: ছবির প্রিমিয়ারে অ্যাঞ্জেলিনার পুরনো পোশাকেই নজর কাড়লেন জাহারা জোলি-পিট!

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla