Deganga: ঘরের মধ্যেই এ কী কাণ্ড! দেওরের ‘কোমর কামড়ে মাংস তুলে দিল’ বৌদি

North 24 pargana: ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনার আমুলিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের বাওরআটি এলাকায়। ছোট ভাইয়ের নাম জাফর আলি।

Deganga:  ঘরের মধ্যেই এ কী কাণ্ড! দেওরের 'কোমর কামড়ে মাংস তুলে দিল' বৌদি
দেওরের কোমর কামড়ে দিল বৌউদি (নিজস্ব ছবি)
TV9 Bangla Digital

| Edited By: অবন্তিকা প্রামাণিক

May 30, 2022 | 12:43 PM

দেগঙ্গা: বৃদ্ধ মা-বাবাকে মারধর করার অভিযোগ উঠেছিল বড় দাদা-বৌদি ও ছেলের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয়, বাবা-মাকে বাঁচাতে গেলে দেওরের কোমর কামড়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠল বৌদির বিরুদ্ধে। পরে হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সেখানেও ছাড়েনি দাদা-বৌদি ও ভাইপো। ধারাল অস্ত্র দিয়ে কাকাকে সেখানেও হামলার চেষ্টা করে ভাইপো। গোটা ঘটনায় তীব্র উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে বিশ্বনাথপুর হাসপাতাল চত্বরে।

ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনার আমুলিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের বাওরআটি এলাকায়। ছোট ভাইয়ের নাম জাফর আলি। পরিবার সূত্রে খবর, দাদা জোহর আলি, ভাইপো জসীমউদ্দিন ও বৌদি আরজিনা বিবি রবিবার সকালে একত্রিত হয়ে তাঁর বৃদ্ধ মাকে বেধড়ক মারধর করতে থাকে। প্রতিবাদ করতে গেলে বাঁশের লাঠি দিয়ে জাফর আলিকেও মারধর করে বলে অভিযোগ। তখন বৃদ্ধ বাবা-মা-কে ও নিজেকে বাঁচাতে গেলে অভিযোগ, বৌদি আরজিনা বিবি তাঁর কোমরে কামড়ে মাংস তুলে দেয়।

এই অবস্থায় বৃদ্ধ মাকে নিয়ে দেগঙ্গার বিশ্বনাথপুর হাসপাতালে যায় জাফর আলি। সেখানে গিয়েও মেলেনি নিস্তার। অভিযোগ, ভাইপো জসিমউদ্দিন, দাদা জোহর আলি ধারাল অস্ত্র নিয়ে চড়াও হওয়ার চেষ্টা করে এবং খুনের হুমকি দেয়। জাফরের অভিযোগ, দীর্ঘদিন ধরে বাবা-মাকে খেতে দেয় না দাদা জোহর আলি। এমনকী বেশ কয়েক মাস আগে বৃদ্ধ বাবার চোখে মেরে চোখ কানা করে দিয়েছে তাঁর ভাইপো। এরপর দেগঙ্গা থানা এসে দোষীদের শাস্তির দাবিতে জাফর আলি অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে দেগঙ্গা থানার পুলিশ।

এই বিষয়ে আক্রান্ত দেওর বলেন, ‘আমার মাকে মারছিল। গালিগালাজ করছিল। আমি প্রতিবাদ করি। তখনই চড়াও হয় আমার উপর। আমার কোমরে কামড়ে দেয় বৌদি। মাংস তুলে নিয়েছে। শুধু দাদা-বৌদি নয়, ভাইপো আমাকে মারে। ধারাল অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে। আমি চাই ওদের কড়া শাস্তি হোক।’

এই খবরটিও পড়ুন

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla