করোনা আবহে রক্ত সংকট, শ্রাদ্ধানুষ্ঠানে রক্তদান শিবিরের আয়োজন

করোনাকালে অক্সিজেনের সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালগুলিতে দেখা দিয়েছে রক্ত সংকট। চরম সংকটের মধ্যে পড়েছেন থ্যালাসেমিয়া রোগীরা। এই পরিস্থিতিতে অভিনব উদ্যোগ নিলেন কুলটির তৃণমূল নেতা তথা সমাজকর্মী চিন্তাহরণ চট্টোপাধ্য়ায় ও তাঁর পরিবার

করোনা আবহে রক্ত সংকট, শ্রাদ্ধানুষ্ঠানে রক্তদান শিবিরের আয়োজন
নিজস্ব চিত্র

আসানসোল: করোনাকালে অক্সিজেনের সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালগুলিতে দেখা দিয়েছে রক্ত সংকট। চরম সংকটের মধ্যে পড়েছেন থ্যালাসেমিয়া রোগীরা। এই পরিস্থিতিতে অভিনব উদ্যোগ নিলেন কুলটির তৃণমূল নেতা তথা সমাজকর্মী চিন্তাহরণ চট্টোপাধ্য়ায় ও তাঁর পরিবার। চিন্তাহরণবাবুর বাবার শ্রাদ্ধানুষ্ঠানে রক্তদান শিবিরের আয়োজন করলেন তাঁরা। করোনা আবহে রক্ত সংকট মেটাতে তাঁদের এই উদ্যোগ বলে জানালেন চট্টোপাধ্যায় পরিবারের সদস্যরা।

এদিন কুলটির মিঠানিতে রক্তদান শিবিরের আয়োজন করেন চিন্তাহরণ চট্টোপাধ্যায়। বাবা নীলমনি চট্টোপাধ্যায়ের শ্রাদ্ধানুষ্ঠান উপলক্ষে এই জনহিতৈষী মূলক উদ্যোগ নেন তাঁরা। চিন্তাহরণবাবু নিজে একজন তৃণমূল নেতা, সমাজকর্মীর সঙ্গে সঙ্গে কুলটি রক্তদান আন্দোলনের অন্যতম মুখ।

রাজ্যে করোনা পরিস্থিতিতে রক্তের আকাল দেখা দিয়েছে। জেলা হাসপাতালের ব্লাড ব্য়াঙ্ক প্রায় শূন্য। শুধু আসানসোল জেলা হাসপাতালে যেখানে প্রতিদিন গড়ে ৬০ থেকে ৭০ বোতল রক্তের প্রয়োজন হয়, সেখানে এখন মাত্র ২০ থেকে ২৫ বোতল রক্ত আসছে। সমাজসেবী সংগঠনগুলির বহু সদস্য এখন কোভিডে আক্রান্ত। তাই রক্তদান শিবিরের আয়োজন হচ্ছে না। তার আগে ভোটের জন্য রক্তদান শিবির বন্ধ ছিল। এখন জেলা হাসপাতালের পক্ষ থেকে জনসাধারণের কাছে রক্তদানের জন্য আহ্বান করা হয়েছে।

তাদের সেই আবেদনে সাড়া দিয়ে মানবিক উদ্যোগ নিলেন কুলটির মিঠানি চট্টোপাধ্যায় পরিবার। পরিবারের প্রিয়জনের শ্রাদ্ধানুষ্ঠান রক্তদান শিবিরের আয়োজন করলেন তাঁরা। পরিবারের সদস্য তথা তৃণমূল কংগ্রেসের পশ্চিম বর্ধমান জেলা কমিটির সম্পাদক মণ্ডলী সদস্য চিন্তাহরণ চট্টোপাধ্যায় জানান তাঁর বাবা নীলমণি চট্টোপাধ্যায়ের ভীষণ ইচ্ছা ছিল তাঁর মৃত্যুর পরে কিডনি এবং অন্যান্য অঙ্গদান করার। কিন্তু এই করোনা পরিস্থিতিতে তা সম্ভব হয়নি। সেই কারণেই বাবার শ্রাদ্ধানুষ্ঠানে রক্তদান শিবিরের আয়োজন করলেন তাঁরা। পরিবারের লোকেরা, বন্ধু-বান্ধব এবং শুভানুধ্যায়ীরা রক্তদান করেছেন।

আরও পড়ুন: করোনা আবহে খালি ব্লাডব্যাঙ্ক, সঙ্কট মেটাতে রক্তদান পুলিশের 

এদিনের শিবিরে উপস্থিত ছিলেন কুলটির প্রাক্তন বিধায়ক উজ্জ্বল চট্টোপাধ্যায়, আসানসোল পুরনিগমের প্রশাসনিক বোর্ডের সদস্য তবাসুম আরা, বিশিষ্ট সমাজসেবী প্রবীর ধর প্রমুখ। তাঁরা প্রত্যেকেই এই উদ্যোগের জন্য চিন্তাহরণবাবুকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।