মৎস্যজীবীদের ওপর হামলা এড়াতে আবারও সুন্দরবনের বাঘের গলায় ‘রেডিয়ো কলার’!

রবিবার দুপুরে হরিখালি জঙ্গলে ছেড়ে দেওয়া হয় বাঘটিকে।

মৎস্যজীবীদের ওপর হামলা এড়াতে আবারও সুন্দরবনের বাঘের গলায় 'রেডিয়ো কলার'!
রেডিয়ো কলার পরিয়ে ছেড়ে দেওয়া হল বাঘটিকে

দক্ষিণ ২৪ পরগনা: গত কয়েক মাসে বারবার সুন্দরবনে (Sundorbon) মৎস্যজীবীদের ওপর বাঘের হামলার ঘটনা ঘটেছে। তাতে বেশ উদ্বেগে ছিল রাজ্য বন দফতর। আবারও মৎস্যজীবীদের ওপর হামলা এড়াতে বাঘের গলায় ‘রেডিয়ো কলার’ পরালেন বন কর্তারা। রবিবার সাত বছরের একটি বাঘের গলায় অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ‘রেডিয়ো কলার’ পরিয়ে সুন্দরবনের হরিখালি বিটের হরিণভাঙা জঙ্গলে ছাড়া হল। বিশেষত, তাঁদের গতিবিধি ও স্বভাব বৈশিষ্ট্যের ওপর নজর রাখতেই এই উদ্যোগ।

এর আগেও সুন্দরবনের কয়েকটি বাঘের গলায় রেডিয়ো কলার পরিয়ে ছাড়া হয়েছিল। কিন্তু আগের ‘রেডিয়ো কলার’গুলি নোনা আবহাওয়া ও জলের স্পর্শে সেগুলি নষ্ট হয়ে যায় । পরবর্তী সময়ে আরও উন্নতি প্রযুক্তির ‘রেডিয়ো কলার’ ব্যবহার করেই সেই কাজকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার উদ্যোগ নেয় রাজ্য বন দফতর। বেশ কয়েক মাস ধরেই সুন্দরবনে মাছ, কাঁকড়া ধরতে যাওয়া মৎস্যজীবীদের ওপর খাবারের খোঁজে বেশি হামলা চালিয়েছে বাঘ। তাতে যথেষ্টই উদ্বিগ্ন বন কর্তারা।

দিন চারেক আগে একটি লোহার খাঁচা পাতা হয়েছিল। সেখানে একটি ছাগল রেখে অপেক্ষা করছিলেন বনকর্মীরা।  শনিবার রাতেই সেই ফাঁদে ধরা পড়ে সাত বছরের বাঘটি। খবর পেয়েই রবিবার সুন্দরবনে চলে যান রাজ্যের প্রধান মুখ্য বনপাল (বন্যপ্রাণ) বিকে যাদব ও সুন্দরবন ব্যাঘ্র প্রকল্পের ক্ষেত্র অধিকর্তা তাপস দাশ ও উপ অধিকর্তা দীপক রেড্ডি ।

আরও পড়ুন:  ‘রাখি কার্ড দেবেন বলেছিলেন, তৃণমূলে যোগ দেওয়াচ্ছেন কেন?’ নেতার সামনেই ব্যাগড়া রাখিশিল্পীর

এরপর বাঘটিকে অচৈতন্য করে তার গলায় রেডিয়ো কলার পরিয়ে দেওয়া হয় । এদিন দুপুর পর্যন্ত বাঘটিকে পাঁচ কেজি মুরগির মাংস খেতে দেওয়া হয়। আর তা সবটাই সাবাড় করে সে। পরে রবিবার দুপুরে হরিখালি জঙ্গলে ছেড়ে দেওয়া হয় বাঘটিকে।

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla