Murshidabad: ‘মুর্শিদাবাদকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল করা হোক’, প্রধানমন্ত্রীর দফতরে চিঠি বিধায়কের

Murshidabad: বিজেপি বিধায়কের অভিযোগ, "মুর্শিদাবাদের ঐতিহাসিক গুরুত্ব মুছে ফেলার ষড়যন্ত্র করছে রাজ্য সরকার। সেই কারণেই মুখ্যমন্ত্রী মুর্শিদাবাদকে ভাগ করতে চাইছেন।"

Murshidabad: 'মুর্শিদাবাদকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল করা হোক', প্রধানমন্ত্রীর দফতরে চিঠি বিধায়কের
মুর্শিদাবাদের বিধায়ক
TV9 Bangla Digital

| Edited By: Soumya Saha

Aug 02, 2022 | 6:26 PM

কলকাতা ও মুর্শিদাবাদ : নতুন সাতটি জেলা গঠনের কথা ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সোমবারের সেই ঘোষণা অনুযায়ী, মুর্শিদাবাদ জেলাকে তিনটি ভাগ করা হচ্ছে। মুর্শিদাবাদ জেলা থেকে ভাগ করে কান্দি ও বহরমপুরকে পৃথক জেলা করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করে ইতিমধ্যেই সরব হয়েছে বিজেপি শিবির। মুর্শিদাবাদের বিজেপি বিধায়ক গৌরী শঙ্কর দাস আবার দাবি জানিয়েছেন মুর্শিদাবাদকে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল করা হোক। এই নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর দফতরে এবং কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দফতরে চিঠি পাঠিয়েছেন বিধায়ক। চিঠি পাঠানো হয়েছে রাষ্ট্রপতি ভবনে এবং রাজ্যপালের কাছেও।

চিঠিতে শঙ্কর ঘোষ লিখেছেন, “গতকাল রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেছেন মুর্শিদাবাদ জেলাকে তিন ভাগে ভাগ করা হবে। সেক্ষেত্রে বহু ইতিহাসের সাক্ষী মুর্শিদাবাদের নাম থাকবে না।” এই প্রসঙ্গে তিনি মুর্শিদাবাদের ইতিহাসও তুলে ধরেছেন চিঠিতে। লিখেছেন, অবিভক্ত বাংলা-বিহার-ওড়িশার রাজধানী ছিল মুর্শিদাবাদ। ভারতের ইতিহাস এবং সংস্কৃতির এক গুরুত্বপূর্ণ ভাগ হল মুর্শিদাবাদ। তাঁর অভিযোগ, “মুর্শিদাবাদের ঐতিহাসিক গুরুত্ব মুছে ফেলার ষড়যন্ত্র করছে রাজ্য সরকার। সেই কারণেই মুখ্যমন্ত্রী মুর্শিদাবাদকে ভাগ করতে চাইছেন।” এই পরিস্থিতিতে জেলার অখণ্ডতা অটুট রাখার জন্য এটিকে মুর্শিদাবাদ নাম দিয়ে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল হিসেবে যাতে ঘোষণা করা হয়, সেই অনুরোধ করেছেন বিধায়ক গৌরীশঙ্কর দাস। সঙ্গে তিনি এও লিখেছেন, জেলাবাসী চান না মুর্শিদাবাদের নাম মুছে যাক।

বিষয়টি নিয়ে ফেসবুকে একটি পোস্টও করেছেন বিজেপি বিধায়ক। লিখেছেন, “সুপ্রভাত,মাননীয়া যদি মুর্শিদাবাদ জেলা ভেঙে মুর্শিদাবাদের ইতিহাস ভুলিয়ে দিতে চান,তবে আমি ভারত সরকারের কাছে দাবি জানাচ্ছি,অবিভক্ত মুর্শিদাবাদ জেলাকে তারা যেন তাদের অধীনে নিয়ে ‘মুর্শিদাবাদ’ নামে একটি পূর্ণাঙ্গ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল তৈরি করে আমাদের অবিভক্ত বাংলা, বিহার, উড়িষ্যার রাজধানী মুর্শিদাবাদের হৃত গৌরব আমাদের ফিরিয়ে দেন।”

BJP MLA

বিজেপি বিধায়কের চিঠি

এই নিয়ে তৃণমূলের বহরমপুর-মুর্শিদাবাদ সাংগঠনিক জেলা সভাপতি শাওনী সিংহ রায় জানিয়েছেন, “মুর্শিদাবাদের বিধায়ক তো কোনও এলাকার উন্নয়ন করেন না। নিজের এলাকার নসিপুর রেল ব্রিজটাও দরবার করে করতে পারলেন না। মুর্শিদাবাদ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল কেন হবে? কী সমস্যা রয়েছে মুর্শিদাবাদ জেলায়? শুধু মানুষের নজরে আসার জন্য, সংবাদমাধ্যমের নজরে আসার জন্য এটি করছেন। মুর্শিদাবাদে যথেষ্ট উন্নয়ন হচ্ছে। মুর্শিদাবাদের নাগরিক হিসেবে আমি মুখ্যমন্ত্রীর কাছে কৃতজ্ঞ। জেলা ভাগ বা জেলা বিন্যাস মানে উন্নয়ন আরও ভাল হবে। সদর অফিসগুলি মানুষের দোরগোড়ায় হয়ে যাবে।”

জেলার বিশিষ্ট নাট্যব্যক্তিত্ব প্রদীপ ভট্টাচার্য এই বিষয়ে জানিয়েছেন, “যদি ভুলিয়ে দেওয়ার চেষ্টা হয়, যদি প্রতিরোধ না হয়, তাহলে একদিন মানুষ ভুলে যাবে। ইউরোপ তার ঐতিহ্যকে কোনওদিন নষ্ট হতে দেয়নি। সেগুলিই লোকে দেখতে যায়। মুর্শিদাবাদ নামের সঙ্গে একটি ইতিহাস, একটি স্থাপত্যশিল্প এবং একটি সংস্কৃতির মিলনভূমি।”

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla