Bidhannagar Municipal Election 2022: ফের দিলীপের প্রচারে বাধা, ভেসে এল গ্রেফতারির হুঁশিয়ারিও, পাল্টা ‘ধামাকাদার’ প্রচারের চ্যালেঞ্জ বিজেপি নেতার

Dilip Ghosh: ক্ষুব্ধ বিজেেপি নেতা বলেন, "মার্কেট চলছে, মেলা চলছে, খেলা চলছে, সব চলছে কিন্তু বিজেপির মিছিল চলবে না।''

Bidhannagar Municipal Election 2022: ফের দিলীপের প্রচারে বাধা, ভেসে এল গ্রেফতারির হুঁশিয়ারিও, পাল্টা 'ধামাকাদার' প্রচারের চ্যালেঞ্জ বিজেপি নেতার
সল্টলেকে দিলীপ ঘোষ। নিজস্ব চিত্র

বিধাননগর: পরপর তিনবার। প্রথম দু’বার আসানসোলে, তৃতীয় বার বিধাননগরে পুর প্রচারে পুলিশি বাধা পেলেন দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। করোনা বিধি ভঙ্গের অভিযোগে বিজেপি নেতার প্রচারে বাধা দেয় বিধাননগর পুলিশ। মাইকে ভেসে আসে গ্রেফতারির হুঁশিয়ারিও। অন্যদিকে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ- সভাপতির চ্যালেঞ্জ, এবার ধামাকাদার প্রচার করবেন তিনি।

বৃহস্পতিবার সকালে বিধাননগর পুরভোটের দুই বিজেপি প্রার্থীর প্রচারে যান দিলীপ ঘোষ। মুখে গেরুয়া মাস্ক পরিহিত দিলীপকে ঘিরে কর্মী সমর্থকদের ভিড় লক্ষ্য করা যায়। যদিও বিজেপি নেতার দাবি, তাঁরা করোনা বিধি মেনে পাঁচজনকে নিয়ে প্রচারে বেরোন। এদিকে মাইকে যখন ‘দিলীপ ঘোষ জিন্দাবাদ’ ধ্বনি উঠছে, ঠিক তখনই অকুস্থলে আসে বিধাননগর পুলিশ। সল্টলেকেও দিলীপের প্রচারে বাধা দেওয়া হয়।

৩২ ও ৩৩ নম্বর ওয়ার্ডের বিজেপি প্রার্থীদের সমর্থনে এদিনের প্রচারে দিলীপ ঘোষ ছাড়া ছিলেন শমীক ভট্টাচার্য, রাজু বন্দ্যোপাধ্যায়রা। দুই প্রার্থী মলি পাল এবং পিয়ালী দেবীর সমর্থনে প্রচারে বের হলে আসে পুলিশি বাধা। অভিযোগ, নির্বাচন কমিশনের নির্দেশিকা তথা রাজ্যের করোনা বিধি ভাঙছে। তাই প্রচার বন্ধ করতে হবে। বিধাননগর পূর্ব ও বিধাননগর পশ্চিম থানার তরফে মাইকিং করা হয় এভাবে প্রচার করলে মহামারি আইনে গ্রেফতারও করা হতে পারে।

এদিকে দিলীপ ঘোষের প্রতিক্রিয়া, “এখানে ওইসব নিয়মবিধি কউ মানছেন না। কেন্দ্রীয় সরকার বারবার যে গাইডলাইন দিয়েছে তা মানা হয়নি। এখন কলকাতায় সংক্রমণ বেড়েছে।” দিলীপের কটাক্ষ, “এটা গর্বের বিষয়।” বিজেপি নেতার কথায়, “পুরভোটে বিভিন্ন দলের পতাকা, ফ্লেক্স ছিঁড়ে, ভেঙে দেওয়া হচ্ছে। কিন্তু তৃণমূলের ঠিক আছে। সরকারি যে ঘোষণা তা নজেই শাসক শিবির মানছে না। অথচ আমাদের বারবার আটকাচ্ছে। ৬০০ লোক নিয়ে ওরা প্রচার করতে পারে। কেউ কিছু বলছে না।”

তিনি আরও যোগ করেন, “মার্কেট চলছে, মেলা চলছে, খেলা চলছে, সব চলছে কিন্তু বিজেপির মিছিল চলবে না। আমি আসানসোলে ছিলাম। ওখানে রোজ আটকেছে। এখানেও আটকাচ্ছে, জানি না কী অপরাধ করেছি!”

প্রসঙ্গত, এর আগে আসানসোলে প্রচারে গিয়ে দু দু’বার প্রচারে বাধা পান দিলীপ. সেখানেও অভিযোগ ওঠে করোনা বিধি মেনে তিনি প্রচার করেছেন। যদিও দিলীপ তা অস্বীকার করেন। আর এদিনের ঘটনার পর ফের ‘ধামাকাদার’ প্রচারের হুঁশিয়ারি দিলেন তিনি।

এদিকে কলকাতার মেয়র তথা রাজ্যের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের প্রতিক্রিয়া, “ওঁনারা বিধি মানছেন না। বারবার ওঁনাকে অনুরোধ করছি, সবাই কমিশনের নির্দেশ মানব। আপনি মাওবাদী নন যে নির্বাচন মানেন না। গণতন্ত্র মেনে যদি কাজ করেন, তাহলে নির্বাচন কমিশনকে মানতেই হবে।”

আরও পড়ুন: Weather Update: আগামী ২৪ ঘণ্টাতেও বৃষ্টির পূর্বাভাস এই ৭ জেলায়! তাপমাত্রা কি ফের কমবে?

Published On - 12:42 pm, Thu, 13 January 22

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla