Post Poll Violence: জগদ্দল- দত্তপুকুর খুনে অভিযুক্তরা এখনও অধরা, খোঁজ দিতে পারলেই মোটা টাকার পুরস্কার

Post Poll Violence: জগদ্দল- দত্তপুকুর খুনে অভিযুক্তরা এখনও অধরা, খোঁজ দিতে পারলেই মোটা টাকার পুরস্কার
ভোট পরবর্তী হিংসায় তদন্ত সিবিআইয়ের (ফাইল ছবি)

Post Poll Violence: যিনি সিবিআইকে অভিযুক্তদের গ্রেফতার করতে তথ্য দেবেন তার নাম পরিচয় গোপন রাখা হবে। সিবিআই মোবাইল নম্বর, ল্যান্ড ফোন নম্বর ও ইমেইল আইডি দিয়ে এবার পুরস্কার ঘোষণা করল।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: শর্মিষ্ঠা চক্রবর্তী

Jan 29, 2022 | 11:49 AM

কলকাতা: কাঁকুরগাছি অভিজিৎ সরকার খুনের মামলার পর এবার জগদ্দল খুন কেস! আবারও অভিযুক্তদের ধরতে মোটা টাকার পুরস্কার ঘোষণা সিবিআই-এর।  ভোট-পরবর্তী হিংসায় এবার দত্তপুকুর ও জগদ্দলে খুনের মামলায় অভিযুক্তদের খোঁজ পেতে পুরস্কার ঘোষণা করল সিবিআই। এক্ষেত্রেও কেউ যদি ওই অভিযুক্তদের খোঁজ দিতে পারে, তাহলে ৫০ হাজার টাকা করে নগদ পুরস্কার দেওয়া হবে বলে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার তরফে ঘোষণা করা হয়েছে। যিনি সিবিআইকে অভিযুক্তদের গ্রেফতার করতে তথ্য দেবেন বা সাহায্য করবেন, তাঁর নাম পরিচয় গোপন রাখা হবে। সিবিআই মোবাইল নম্বর, ল্যান্ড ফোন নম্বর ও ইমেইল আইডি দিয়ে এবার পুরস্কার ঘোষণা করল।

অভিযুক্তদের নাম, তাদের বিরুদ্ধে কোন মামলা চলছে সেবিষয়ে বিস্তারিত দেওয়া হয়েছে পুরস্কার ঘোষণাপত্রে। দু’টি মামলাতেই  নয় অভিযুক্তের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি হয়েছিল। তাদের পলাতক ঘোষণা করা হয়েছিল। তারপরও তাদের গ্রেফতার করা যায়নি। তারা আত্মসমর্পণও করেনি। অভিযুক্ত ৯ জন হল, পঙ্কজ দাস, সুমিত যাদব, গুড্ডু যাদব, জাহাঙ্গির হোসেন, নাসির আলি, নাজির হোসেন, সঞ্জীর হোসেন, কবির হোসেন, খালিদ জামান।

ভোট পরবর্তী সন্ত্রাসের তদন্তে জেলায় জেলায় ঘরছে সিবিআই টিম। কিছুদিন আগেই  উত্তর চব্বিশ পরগনাতেও যায় সিবিআই টিম। ভোট পরবর্তী হিংসার তদন্তে নেমে এক তৃণমূল সমর্থকের বাড়ি তল্লাশি অভিযান চালায় সিবিআই। দীর্ঘক্ষণ ধরে চলতে থাকে খুনের ঘটনার তদন্ত। এদিন জগদ্দলের ‘পুরানিয়া তালাব’ এলাকায়, নিহত আকাশ যাদবের পরিবারের লোকজনের সঙ্গে কথা বলে তথ্য সংগ্রহ করেন কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার অফিসাররা।  গত ২ মে আকাশ যাদবকে বন্দুকের বাঁট দিয়ে মেরে ও গুলি করে হত্যা করে দুষ্কৃতীরা। পাশাপাশি কথা বলা হয় নিহত শোভারানি দাসের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গেও।  শোভারানির ছেলে বিজেপি করেন। তাঁর ওপর হামলা হয়। ছেলেকে বাঁচাতে গিয়ে আক্রান্ত হয়েছিলেন তিনি।

গত ৩মে দত্তপুকুরে ‘খুন’ হন হাসানুর জামান। সেদিন খেতে কাজ করছিলেন হাসানুর। অভিযোগ, সেসময় দুষ্কৃতীরা ঘিরে ফেলে তাঁকে। হাত বোমা, স্টিক, আইরন রড দিয়ে মারধর শুরু করে দুষ্কৃতীরা। তাঁকে বাঁচাতে ছুটে আসেন স্ত্রী। কিন্তু তাঁর সামনেই খুন হয়ে যান হাসানুর। সেই ঘটনায় ৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের হয়। কিন্তু পুলিশ কোনও ভাবেই তাদের ধরতে পারছে না। এখনও পর্যন্ত পলাতক অভিযুক্তরা। পলাতক ৬ জনের জন্য মাথা পিছু ৫০ হাজার টাকা করে পুরস্কার ঘোষণা করেছেন তদন্তকারীরা।

এদিকে, শুক্রবারই কাঁকুরগাছি অভিজিৎ সরকার খুনের মামলায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে হুলিয়া জারি হয়েছে। তাদেরও খুঁজে দিতে পারলে দেওয়া হবে ৫০ হাজার টাকা পুরস্কার।

আরও পড়ুন: ‘দিলীপ ঘোষকে দেখলে লোক এমনিই ভিড় করে, আমি পিছানোর মানুষ নই’, পুলিশের সঙ্গে তুমুল বচসা

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA