Drinking Water: খেতে খেতে জল খান? সাবধান, এই সব জটিল রোগের কবলে পড়তে চলেছেন আপনি!

Health Tips: আয়ুর্বেদের মতে খাবার খাওয়ার অন্তত ১ ঘন্টা ৪৫ মিনিট পর জল খাওয়া উচিত। এই সময়টা হজমের জন্য প্রয়োজন

Jul 05, 2022 | 8:17 AM
TV9 Bangla Digital

| Edited By: Reshmi Pramanik

Jul 05, 2022 | 8:17 AM

অনেকেই খেতে বসে জল খান। জলের গ্লাস পাশে নিয়ে না বসলে খাওয়াই হয় না। এদিকে গুরুজনেরা কিন্তু সব সময় বলেন খেতে খেতে জল খাওয়া একেবারেই ঠিক নয়। এর কিছু বৈজ্ঞানিক কারণও রয়েছে।

অনেকেই খেতে বসে জল খান। জলের গ্লাস পাশে নিয়ে না বসলে খাওয়াই হয় না। এদিকে গুরুজনেরা কিন্তু সব সময় বলেন খেতে খেতে জল খাওয়া একেবারেই ঠিক নয়। এর কিছু বৈজ্ঞানিক কারণও রয়েছে।

1 / 5
খেতে খেতে জল খেলে শরীরে হজমকারী হরমোন ঠিক মতো কাজ করে না। এছাড়াও এই পাচন প্রক্রিয়ায় গুরুত্বপূর্ণ হল অ্যামাইনো অ্যাসিড। তাও নষ্ট হয়ে যায়। ফলে তা শরীরের জন্য মোটেও সুখকর হয় না।

খেতে খেতে জল খেলে শরীরে হজমকারী হরমোন ঠিক মতো কাজ করে না। এছাড়াও এই পাচন প্রক্রিয়ায় গুরুত্বপূর্ণ হল অ্যামাইনো অ্যাসিড। তাও নষ্ট হয়ে যায়। ফলে তা শরীরের জন্য মোটেও সুখকর হয় না।

2 / 5
খাবার খাওয়ার সঙ্গে জল খেলে শরীরে কোলেস্টেরলের মাত্রা বেড়ে যায়। মূলত বাজে কোলেস্টেরল। যা একেবারেই কাম্য নয়। এই বাজে কোলেস্টেরল হার্টের দুপাশে জমতে শুরু করে। সেখান থেকে হার্ট ব্লকেজের সম্ভাবনা থেকে যায়। ফলে হতে পারে হার্ট অ্যার্টাকও।

খাবার খাওয়ার সঙ্গে জল খেলে শরীরে কোলেস্টেরলের মাত্রা বেড়ে যায়। মূলত বাজে কোলেস্টেরল। যা একেবারেই কাম্য নয়। এই বাজে কোলেস্টেরল হার্টের দুপাশে জমতে শুরু করে। সেখান থেকে হার্ট ব্লকেজের সম্ভাবনা থেকে যায়। ফলে হতে পারে হার্ট অ্যার্টাকও।

3 / 5
খেতে খেতে জল খেলে শরীরে ট্রাইগ্লিসারাইডের মাত্রাও কিন্তু বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। যা বিভিন্ন হার্টের অসুখ ডেকে আনে। সেই সঙ্গে মস্তিষ্কে রক্ত প্রবাহ থেমে যেতে পারে।

খেতে খেতে জল খেলে শরীরে ট্রাইগ্লিসারাইডের মাত্রাও কিন্তু বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। যা বিভিন্ন হার্টের অসুখ ডেকে আনে। সেই সঙ্গে মস্তিষ্কে রক্ত প্রবাহ থেমে যেতে পারে।

4 / 5
খাবারের মাঝে জল খেলে খিদে মনে যায়। তখন পরিমাণের তুলনায় কম খাওয়া হয়। একই সঙ্গে খাবারও ঠিকমত হজম হয় না। গ্যাস-অম্বলের পাশাপাশি ইউরিক অ্যাসিড বেড়ে যাওয়ার মত সমস্যাও হয়।

খাবারের মাঝে জল খেলে খিদে মনে যায়। তখন পরিমাণের তুলনায় কম খাওয়া হয়। একই সঙ্গে খাবারও ঠিকমত হজম হয় না। গ্যাস-অম্বলের পাশাপাশি ইউরিক অ্যাসিড বেড়ে যাওয়ার মত সমস্যাও হয়।

5 / 5

Follow us on

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla